ঢাকা, সোমবার, ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭, ৪ পৌষ ১৪২৪, ২৯ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯
শিরোনামঃ
স্বাধীনতা বিরোধীদের মানুষ ভোট দেবে না : প্রধানমন্ত্রী নতুন মানচিত্র শিগগিরই প্রকাশ হবে পাঠ্যপুস্তকসহ সর্বত্র চির নিদ্রায় শায়িত হলেন প্রয়াত মন্ত্রী ছায়েদুল হক সংযুক্ত আরব আমিরাতের ব্যবসায়ীদের আরো বিনিয়োগের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর কক্সবাজারের আশ্রয়কেন্দ্রে ডিপথেরিয়া রোগী সনাক্ত, টিকাদান চলছে ৬ ঘণ্টা বন্ধ থাকার পর কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল শুরু সুষ্ঠু ও অবাধ হবে রংপুর সিটি নির্বাচন: ওবায়দুল কাদের  ডিএনসিসি উপ-নির্বাচন ফেব্রুয়ারিতে  প্রিয় নেতার বাড়িতে প্রতিনিয়ত শোকার্ত নেতাকর্মীদের ভিড় প্রশ্নপত্র ফাঁসে সরকারি লোকজন জড়িত- দুদক শেষ মুহূর্তের প্রচারণায় জমজমাট রংপুর নগরী রাকসু’র নির্বাচনের দাবিতে গণস্বাক্ষর কর্মসূচি  আন্তর্জাতিক অভিবাসন দিবস সোমবার যুব গেমস উপলক্ষ্যে র‌্যালি ও আলোচনা সভা  বৈশ্বিক তাপমাত্রা ৩ ডিগ্রি পর্যন্ত বাড়ার আশঙ্কা  মুক্তিযুদ্ধের আদর্শিক লড়াই শেষ হয়নি আজও কংগ্রেসের সভাপতি হিসেবে রাহুল গান্ধীর অভিষেক সুশাসন প্রতিষ্ঠায় বারবার হোচট খেয়েছে বাংলাদেশ নাটোরে চালু হয়নি কৃষকদের ৫টি শস্য মার্কেট রাজধানীর বাজারে পেঁয়াজের দাম বেড়েছে দ্বিগুণ

নিউইয়র্কে সেমিনারে অর্থমন্ত্রী

২০২৪ সালের মধ্যে বাংলাদেশ দারিদ্রদূরীকরণে সফল হবে

প্রকাশিত: ০৫:৪২ , ১১ অক্টোবর ২০১৭ আপডেট: ০৫:৪২ , ১১ অক্টোবর ২০১৭

কূটনৈতিক প্রতিবেদক: অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, ২০২৪ সালের মধ্যেই দারিদ্র্যদূরীকরণে বাংলাদেশ সাফল্য অর্জন করবে। নিউইয়র্কের মিলেনিয়াম হিলটন হোটেলে মঙ্গলবার অনুষ্ঠিত ‘টেকসই উন্নয়নের পথে: এমডিজি থেকে পাওয়া শিক্ষা ও এসডিজি অর্জনের উপায়’ শীর্ষক আন্তর্জাতিক সেমিনারে অংশ নিয়ে একথা বলেছেন তিনি। নিউ ইয়র্কে জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী মিশনের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে একথা জানানো হয়েছে।
    
আন্তর্জাতিক থিংঙ্ক ট্যাংক ‘দি ইনস্টিটিউট ফর পলিসি, অ্যাডভোকেসি অ্যান্ড গভর্ননেন্স (আইপ্যাগ) এই আন্তর্জাতিক সেমিনারের আয়োজন করে। এতে সার্বিক সহযোগিতা প্রদান করে অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগ। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

উদ্বোধনী সেশনে বক্তৃতা দেন ইউএনডিপি’র ব্যুরো অফ পলিসি এন্ড প্রোগ্রাম সার্পোট এর সহকারী প্রশাসক ও পরিচালক এবং জাতিসংঘের আন্ডার সেক্রেটারি জেনারেল মাগদি মার্টিনেজ সোলিমান। টেকসই অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জনে বাংলাদেশের সাফল্যের কথা তুলে ধরে তিনি বলেন, “বাংলাদেশ সামগ্রিক অর্থনীতির ব্যবস্থাপনার ক্ষেত্রে একটি নিরবচ্ছিন্ন নীতিমালা প্রণয়ন করতে পেরেছে। যার ফলে দেশটির অর্থনীতির প্রবৃদ্ধি সাম্প্রতিক বছরগুলোতে ধারাবাহিকভাবে ৬ ভাগের উপরে রয়েছে। ১৯৯১ সালে যেখানে দারিদ্র্যের হার ৫৬ শতাংশ ছিল, তা উল্লেখযোগ্য হারে হ্রাস পেয়ে ২০১০ সালে ৩১ শতাংশে এসে দাড়িয়েছে”।

এর আগে স্বাগত ভাষণ দেন আইপ্যাগ এর চেয়ারম্যান প্রফেসর সৈয়দ মুনির খসরু। তিনি ২০৩০ সালের মধ্যে সফলতার সাথে এসডিজি’র লক্ষ্যসমূহ পূরণে এর বিভিন্ন স্টেকহোল্ডারদের মধ্যে ঘনিষ্ঠ সহযোগিতার উপর গুরুত্ব আরোপ করেন।

প্রধান অতিথির ভাষণে অর্থমন্ত্রী এমডিজি বাস্তবায়নের অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে নানা সীমাবদ্ধতা সত্ত্বেও বাংলাদেশ কীভাবে এসডিজি অর্জনে কাজ করে যাচ্ছে তা সেমিনারে তুলে ধরেন। তিনি বলেন, “এসডিজি খুবই আলাদা। আমাদের ভাল অভিজ্ঞতা রয়েছে। যার ফলে লক্ষ্য নির্দিষ্ট করা এখন খুব সহজ। আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ হলো প্রতিশ্র“তি ও দৃঢ় ইচ্ছাশক্তি”।


সেমিনারটিকে চারটি সেশনে ভাগ করা হয়। সেশনগুলোতে মূল বক্তব্য পাঠ করে শোনান নিউইয়র্ক বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্টার অন ইন্টারন্যাশনাল কো-অপারেশন এর পরিচালক সারাহ্ ক্লীফ, ইউএনডিপি’র পরিচালক নিক শিকরান, কলম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের টেকসই উন্নয়ন বিভাগের প্রফেসর রুথ ডেফরাইস্ এবং দ্যা ব্রকলিন ইনস্টিটিউশনের বৈশ্বিক অর্থনীতি ও উন্নয়ন বিষয়ক সিনিয়র ফেলো অ্যান্থনি এফ পিপা, যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন বিশ্বদ্যিালয়ের শিক্ষক, গবেষক, আন্তর্জাতিক বিভিন্ন উন্নয়ন প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিসহ বাংলাদেশ ও বিশ্বের ১৬ জন খ্যাতনামা ব্যক্তিত্ব সেশনগুলোতে প্যানেলিস্ট হিসেবে অংশ নেয়।

সেশনগুলোতে মডারেটর ছিলেন, ক্যাটো ইনস্টিটিউটের সেন্টার ফর গ্লোবাল লিবার্টি অ্যান্ড প্রোসপারিটি বিভাগের সিনিয়র ফেলো সোয়ামিনাথান এস আঙ্কেলেশ্বরিয়া আইয়ার, গ্লোবাল পার্টনারশীপ ফাউন্ডেশনের পরিচালক লরেন ব্রাডফোর্ড, ইউএনডিপির তুরস্কের প্রতিনিধি ক্যারোলিনা মিজেক ক্যালিয়াস এবং বিশ্বব্যাংক গ্র“পের ইউএন প্রতিনিধি বিজর্ন গিলস্যাটার।

 শেষে সমাপনী বক্তব্য প্রদান করেন জাতিসংঘের এসডিজি বিষয়ক গ্লোবাল অ্যাডভোকেট ও হেলথ্ এমপ্লয়মেন্ট ও ইকোনমিক গ্রোথের হাই লেভেল কমিশনার ডা: আলয়া মুরাবিট।

বাংলাদেশ ডেলিগেশনের মধ্যে প্যানেলিস্ট হিসেবে অংশ নেন জাতিসংঘে নিযুক্ত বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি ও রাষ্ট্রদূত মাসুদ বিন মোমেন, পরিকল্পনা কমিশনের সদস্য সিনিয়র সচিব সামসুল আলম, অর্থ বিভাগের সচিব মোহাম্মদ মুসলিম চৌধুরী এবং অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের সচিব কাজী শফিকুল আজম।

 

 

এই বিভাগের আরো খবর

লালমনিরহাটে দ্রব্য মূল্য কমানোর দাবিতে সিপিবি’র কর্মসূচি

লালমনিরহাট প্রতিনিধি: বিদ্যুৎ, চাল, ডালসহ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের দাম কমানোর দাবিতে লালমনিরহাটে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছে বাংলাদেশ...

সিলেটে রপ্তানি খাতের উন্নয়ন সংক্রান্ত সেমিনার অনুষ্ঠিত

সিলেট প্রতিনিধি:  সিলেটের রপ্তানি খাতের উন্নয়ন নিয়ে রপ্তানি সংক্রান্ত সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার দুপুরে সিলেট চেম্বার অব কমার্স...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is