ঢাকা, রবিবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৭, ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৪, ২৯ সফর ১৪৩৯
শিরোনামঃ
ইতিহাস মুছে ফেলা যায় না, বিশ্ব স্বীকৃতিই তার প্রমাণ : প্রধানমন্ত্রী প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা শুরু, অংশ নিচ্ছে ৩১ লাখ শিক্ষার্থী সাভার-আশুলিয়া শিল্পাঞ্চলে গ্যাস সংকট, উৎপাদন ব্যাহত মাগুরায় শিশুদের মধ্যে ঠাণ্ডাজনিত রোগের প্রকোপ রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন করবেন ইইউসহ তিন দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ঢাকায় বাংলাদেশ ও চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বৈঠক রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শনে কক্সবাজারে মার্কিন প্রতিনিধিদল রোহিঙ্গা শিশুদের ১৭ হাজার মারাত্মক স্বাস্থ্যঝুঁকিতে  গাইবান্ধায় কচুর চাষে স্বাবলম্বী দুই হাজার কৃষক বান্দরবানের সড়কগুলো চলাচলের অনুপযোগি মাগুরায় শিশুদের মধ্যে ঠাণ্ডাজনিত রোগের প্রকোপ  সহায়ক সরকারের অধীনেই নির্বাচন দিতে হবে মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষের সবাইকে যোগ দেয়ার আহ্বান পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া রুটে ফেরি চলাচলে বিঘ্ন, যাত্রীদের দুর্ভোগ রোহিঙ্গা: জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে প্রস্তাব পাস  লক্ষ্মীপুরে ভুল চিকিৎসায় রোগীর মৃত্যু, চিকিৎসকসহ আটক ৪  চুয়াডাঙ্গায় মুক্তিযোদ্ধা মনোয়ার হত্যা মামলায় ২জনের ফাঁসি কার্যকর রোহিঙ্গা সংকট সমাধানের তাগিদ বিভিন্ন দেশের খ্যাতনামা লেখকদের নীতিমালা চূড়ান্ত হচ্ছে আগামী মাসেই প্রশাসনের সরাসরি হস্তক্ষেপের তাগিদ বাজার বিশ্লেষকদের

বরিশালে ঐতিহ্যবাহী শ্মশান দীপালি উৎসব অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত: ১২:৪৪ , ১৯ অক্টোবর ২০১৭ আপডেট: ১২:৪৪ , ১৯ অক্টোবর ২০১৭

বরিশাল প্রতিনিধি: বরিশাল মহাশ্মশানে বুধবার রাতে অনুষ্ঠিত হয়েছে উপমহাদেশের ঐতিহ্যবাহী একমাত্র শ্মশান দীপালি উৎসব। প্রায় দেড়শো বছর ধরে প্রিয়জন আর পূর্ব পুরুষের স্মৃতির উদ্দেশে দ্বীপ জ্বেলে দেওয়ার এই রেওয়াজ চলে আসছে। এই দিনে সমাধিতে স্বজনেরা জ্বালিয়েছেন আলোর রোশনাই। ভূত চতুর্দশীর পুণ্য তিথিতে প্রতিবছর আয়োজন করা হয় এই উৎসবের।

বরিশাল নগরীর লাকুটিয়া খাল ঘিরে প্রায় চার একর জায়গা নিয়ে গড়ে উঠেছে দেড় শতাধিক বছরের প্রাচীন, উপমহাদেশের অন্যতম বৃহৎ এই মহাশ্মশান। ধর্মীয় কোনো রেওয়াজ না থাকলেও কালের বিবর্তনে শ্মশান দীপালি উৎসব বরিশালের সনাতন ধর্মাবলম্বীদের কাছে অন্যতম একটি ধর্মীয় উৎসবে পরিণত হয়েছে। শ্মশানে দীপালি উৎসব দেখতে শুধুমাত্র বরিশালের নয়, দেশ বিদেশ থেকে এসেছেন ভক্ত, অনুসারী ও পর্যটকরা।

এই দিনে প্রিয়জনের স্মৃতিতে তার সমাধিতে দ্বীপের আলো ও সুগন্ধি জ্বালানো হয়েছে। এছাড়া সমাধি সাজিয়ে তোলা হয়েছে ফুল ও প্রয়াতের প্রিয় খাদ্যসহ নানা উপকরণ দিয়ে। পূর্বপুরুষের স্মৃতিতে কেউ পাঠ করেছেন গীতা। প্রার্থনা করে অনেক স্বজন প্রয়াতের জন্য কান্নায় ভেঙে পড়েছেন।

এ ব্যাপারে বরিশাল মহাশ্মশান রক্ষা কমিটির সভাপতি মানিক মুখার্জী বলেন, এই উৎসব উপমহাদেশের ঐতিহ্যবাহী। যা বরিশালের পরিচয় তুলে ধরে। তাই এ উৎসবকে নিরাপদভাবে আয়োজন করতে কোনো কিছুর কমতি ছিল না।

এভাবেই প্রিয়জনদের স্মৃতি আঁকড়ে ধরে স্বজনরা সারা বছর অপেক্ষা করেন এই দিনটির জন্য।

এই সম্পর্কিত আরো খবর

বরগুনার সাজেদা ইন্টারন্যাশনাল চিলড্রেন্স পিস প্রাইজের জন্য মনোনীত

বরগুনা প্রতিনিধি: বরগুনা সদরের মাইঠা গ্রামের তরুণী সাজেদা আক্তার বাল্য বিবাহ প্রতিরোধে দীর্ঘদিন ধরে কাজ করছেন। তার  প্রচেষ্টায় এলাকায়...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is