ঢাকা, রবিবার, ২১ অক্টোবর ২০১৮, ৬ কার্তিক ১৪২৫

2018-10-21

, ১০ সফর ১৪৪০

লাভবান হচ্ছেন না জয়পুরহাটের মাছ চাষীরা

প্রকাশিত: ০৯:২৫ , ১১ নভেম্বর ২০১৭ আপডেট: ০৯:২৫ , ১১ নভেম্বর ২০১৭

জয়পুরহাট প্রতিনিধি: খাদ্যের অধিক মূল্য আর মান নিয়ন্ত্রণের যথাযথ ব্যবস্থা না থাকায় বিপুল পরিমাণ মাছ চাষ করেও লাভবান হচ্ছেন না জয়পুরহাটের মাছ চাষীরা। অথচ প্রতি বছর এই জেলায় ২০ হাজার মেট্রিকটন মাছ উৎপাদন হয়। মৎস্য বিভাগের দাবি, খাদ্যের মূল্য নিয়ন্ত্রণে কোন ব্যবস্থা না থাকলেও মান নিয়ন্ত্রণে যথাযথ ভূমিকা পালন করা হচ্ছে। 

জয়পুরহাটে সরকারি ও বেসরকারিভাবে মোট ১৮ হাজার ৫২টি পুকুর এবং বিভিন্ন খাল বিলে নানা জাতের ২০ হাজার মেট্রিকটন মাছ উৎপাদন হয়। এ মাছ বৃদ্ধির লক্ষ্যে চাষীরা বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের মাছের খাদ্য ব্যবহার করেন। এসব খাদ্যের মূল্য অধিক হলেও নিয়ন্ত্রণে নেই কোন উদ্যোগ। এতে আর্থিকভাবে লোকসানের মুখে পড়ছে এ অঞ্চলের মাছ চাষীরা। পাশাপাশি খাদ্যের মান নিয়েও প্রশ্ন তুলছেন অনেক চাষী।

এদিকে খাদ্যের গুণগত মান নিয়ন্ত্রণে নিয়মিত তদারকি করে আসছে মৎস্য বিভাগ। ফলে মাছের উৎপাদন দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে বলে দাবি করছেন জেলা মৎস্য বিভাগের কর্মকর্তা আব্দুল জলিল ।

মাছের খাদ্য মূল্য এবং খাদ্যের গুণগত মান নিয়ন্ত্রণে রেখে এই জেলায় মাছের উৎপাদন বৃদ্ধির মাধ্যমে দেশের মানুষের আমিষের চাহিদা অনেকটা পূরণ করা সম্ভব। আর সেক্ষেত্রে জেলা মৎস্য বিভাগকে হতে হবে আরো উদ্যাগী। প্রতিষ্ঠা করতে হবে একাধিক মৎস্য বীজ উৎপাদন খামার। এমনটা মনে করছেন জেলার মাছ চাষীরা।
 

এই বিভাগের আরো খবর

ঠাকুরগাঁও সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশি নিহত

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি: ঠাকুরগাঁও সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফের গুলিতে এক বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন। শনিবার ভোরে বালিয়াডাঙ্গী...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is