ঢাকা, শুক্রবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৭, ১ পৌষ ১৪২৪, ২৬ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯
শিরোনামঃ
চির নিদ্রায় শায়িত চট্টল বীর মহিউদ্দিন চৌধুরী মহিউদ্দিন চৌধুরীর মৃত্যুতে চট্টগ্রামে শোকের ছায়া মানুষের অন্তরে মহিউদ্দিন চৌধুরী জননেতা হিসেবেই বেঁচে থাকবেন স্বপ্নের ফেরিওয়ালা মহিউদ্দিন চৌধুরী মহান বিজয় দিবস উদযাপনে দেশজুড়ে নানা আয়োজন  সুশাসন প্রতিষ্ঠায় বারবার হোচট খেয়েছে বাংলাদেশ নাটোরে চালু হয়নি কৃষকদের ৫টি শস্য মার্কেট কুমিল্লায় বাস চাপায় নিহত দুই রংপুর সিটি নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণা শেষ মুহূর্তে জমজমাট রাজধানীর বাজারে পেঁয়াজের দাম বেড়েছে দ্বিগুণ টি-টেন ক্রিকেট লিগে কেরেলা কিংসের জয় হাসপাতালে জনবল-শয্যার অভাবে চিকিৎসা বঞ্চিত ঝিনাদহের নিউমোনিয়া আক্রান্ত শিশুরা পূর্ব জেরুজালেমকে ফিলিস্তিনের রাজধানী হিসেবে সৌদি বাদশাহর স্বীকৃতি নির্বাচনের আগে সংস্কারের জন্য ৩১ প্রস্তাবনা চূড়ান্ত  নেপালে নির্বাচনে বামপন্থী জোটের জয় চট্টগ্রামে রেডকিন সমাধিতে রাশিয়ার সশস্ত্র বাহিনীর শ্রদ্ধা ত্রিদেশীয় ও বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা সিরিজের সময়সূচি ঘোষণা রংপুর সিটি নির্বাচনে বিএনপি প্রার্থীকে সরিয়ে দেয়ার ষড়যন্ত্র হচ্ছে টাঙ্গাইলে ৩০ কিলোমিটার এলাকায় যানজট  থার্টিফার্স্ট নাইটে উন্মুক্ত স্থানে কোনো অনুষ্ঠান নয়: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

দেশে বিস্কুটের বাজার পাঁচ হাজার কোটি টাকার, বাড়ছে ১৫ শতাংশ হারে

প্রকাশিত: ১০:১৬ , ১২ নভেম্বর ২০১৭ আপডেট: ১১:৫৫ , ১২ নভেম্বর ২০১৭

নিজস্ব প্রতিবেদক: পাঁচ বা দশ পয়সা দিলেই ছোট ছোট গোটা পাঁচেক গোল বিস্কুট মিলতো দেশে মাত্র তিন দশক আগেও। রাস্তার ধারে চায়ের ছোট দোকানেও ২ টাকার নিচে নয় একটি বিস্কুটের দাম। এসব বিস্কুট কোন পাড়ার ক্ষুদ্র বেকারিতে বানানা হয়। যত বার বেকারি দাম তত বেশি, আর প্যাকেটজাত হলেও মানের ওপর দাম বাড়ে। টাকার অংকে দেশে বিস্কুটের বাজারের আকার বড় হয়ে এখন প্রায় পাঁচ হাজার কোটি টাকায় দাড়িয়েছে।

দেশের বাজারেই শুধু নয়, বিদেশের বাজারেও রপ্তানি বাড়ছে দেশে উৎপাদিত বিস্কুটের। ২০১১-১২ অর্থবছরে প্রায় ৮৬ কোটি টাকা রপ্তানি গেল সাত বছরে বেড়ে দাঁড়িয়েছে প্রায় ৫০০ কোটি টাকায়।

বিস্কুটের রপ্তানি বাড়লেও এর কাঁচামালের আমদানিও বেড়েছে কেননা দেশে ময়দা বা আটার উৎপাদন কমেছে। এছাড়াও নান সুগন্ধি, বিশেষ পরিশোধিত চিনিসহ বিস্কুট তৈরির নানা অনুষঙ্গও  আমদানি নির্ভর। তবে দেশে বিদেশি বিস্কুটের আমদানি অনেক কমেছে।
দেশীয় বিস্কুটের মানোন্নয়নের জন্য আরও অনেক সুযোগ রয়েছে।  

রপ্তানির ক্ষেত্রে বেকারির বিস্কুট অনুপস্থিত। প্যাকেটজাতরাই রপ্তানীর বাজারে। বেকারী বিস্কুট হাতে তৈরী ও খোলা থাকায় এসব বিস্কুটের ভাল থাকবার মেয়াদ কম, যা রপ্তানি সহায়ক নয়। বেকারী বিস্কুটকে রপ্তানীতে যুক্ত করার উপায় চিন্তা করা হচ্ছে।

বর্তমানে ৯১টি দেশে বিস্কুট রপ্তানি হয়। এর মধ্যে সবচেয়ে বড় বেশি মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোতে হয়। চেষ্টা চলছে ইউরোপের বাজার বি¯তৃত করার। 

এই বিভাগের আরো খবর

দেশে বিস্কুটের বাজার পাঁচ হাজার কোটি টাকার, বাড়ছে ১৫ শতাংশ হারে

নিজস্ব প্রতিবেদক: পাঁচ বা দশ পয়সা দিলেই ছোট ছোট গোটা পাঁচেক গোল বিস্কুট মিলতো দেশে মাত্র তিন দশক আগেও। রাস্তার ধারে চায়ের ছোট দোকানেও ২...

দেশে বর্তমানে প্রায় ৫ লাখ টন বিস্কুট উৎপাদন হচ্ছে, আগ্রহী হচ্ছেন উদ্যোক্তারা

নিজস্ব প্রতিবেদক: খাদ্যাভ্যাস ও রুচির পরিবর্তন ও চাহিদা বৃদ্ধি গত এক-দেড় দশকে দেশে বিস্কুট ও বেকারি পণ্যের উৎপাদন শুধু বাড়ায়নি বৈচিত্রও...

বিদেশি বণিকদের আনা বিস্কুট এখন দেশের অন্যতম ক্ষুদ্রশিল্প

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিস্কুট নামের খাদ্য পণ্যটির মধ্যে যেন যাদু আছে। একজন অবুঝ শিশু হয়তো চিৎকার করে কাঁদছে, কোন ভাবেই শান্ত করা যাচ্ছেনা তাকে;...

আধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার

ক্যান্ডি ও চকলেট তৈরি করছে দেশে আটটি বড় কোম্পানি

নিজস্ব প্রতিবেদক: দেশের চকলেট শিল্পে মূলত ক্যান্ডি ও লজেন্স বেশি তৈরি হয়। চিনি, গ্লুকোজ ও গুড়া দুধ দিয়ে সেগুলো প্রস্তুত করা হয়। চকলেট তৈরি...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is