ঢাকা, সোমবার, ২২ অক্টোবর ২০১৮, ৭ কার্তিক ১৪২৫

2018-10-22

, ১১ সফর ১৪৪০

রপ্তানি দাঁড়াবে কয়েকশ’ কোটি টাকা 

উপকূলে শুটকি তৈরির ধূম

প্রকাশিত: ০৭:৪০ , ১১ জানুয়ারী ২০১৮ আপডেট: ০৫:২৮ , ১১ জানুয়ারী ২০১৮

ডেস্ক রিপোর্ট: উপকূলীয় এলাকায় শুটকি উৎপাদনে ব্যস্ত সময় পার করছে জেলেরা। স্বাস্থ্যসম্মত শুটকি তৈরি করতে চাহিদা বাড়ছে কিটনাশকমুক্ত মাছের। এদিকে, কিটনাশকের ব্যবহার ঠেকাতে কঠোর অবস্থানে রয়েছে প্রশাসন। উৎপাদন খরচ বৃদ্ধির কারণে অনেকটা বিপাকে পড়েছে ব্যবসায়ীরা। এবছরও কয়েকশ’ কোটি টাকার শুটকি রপ্তানি করা যাবে বলেও আশা করছে তারা। 

কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকত থেকে দুই কিলোমিটার পশ্চিমে গড়ে ওঠেছে একের পর এক শুটকিপল্লী। শীতকালে শুটকি উৎপাদনের মওসুম, তাই দিনভরই নানা জাতের মাছ কাটা ও শুকাতে ব্যস্ত শ্রমিকরা। 

জেলার ৩০টি চরে ২৫ ধরনের শুটকি উৎপান হয় বলে জানালেন জেলেরা। তবে, চাঁদাবাজদের উৎপাতে অতিষ্ট হয়ে ওঠছেন তারা। 

শুটকি উৎপাদন প্রক্রিয়া নিরাপদ করার আশ্বাস দিয়েছেন পটুয়াখালীর জেলা প্রশাসক মাছুমুর রহমান। 

এদিকে, কক্সবাজারে পুরো দমে চলছে শুটকি উৎপাদনের কাজ। স্বাস্থ্যসম্মত শুটকি তৈরী করতে কীটনাশক মুক্ত মাছ সরবরাহ করা হচ্ছে বলে জানালেন ব্যবসায়ীরা। কিটনাশকের ব্যবহার ঠেকাতে কঠোর অবস্থানে রয়েছে প্রশাসনও। জানালেন, কক্সবাজারের সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা মঈন উদ্দিন আহমেদ।

এছাড়া নড়াইলেও বাড়ছে বাণ্যিজিকভাবে শুঁটকি উৎপাদন। এতে মাছের ন্যায্যমূল্য পাচ্ছেন জেলেরা, সৃষ্টি হচ্ছে কর্মসংস্থানও। 

শুটকি রপ্তানির প্রধান বাজার মধ্যপ্রাচ্য, ইউরোপের বিভিন্ন দেশ, মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া ও ভারত। এদিকে, আবহাওয়া ভাল থাকায় এবারও কয়েকশ’ কোটি টাকার শুটকি রপ্তানি করার আশা ব্যবসায়ীদের। 
 

এই বিভাগের আরো খবর

সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধায় সমাহিত ফাদার রিগনের দেহাবশেষ

মংলা প্রতিনিধি : হাজারো মানুষের ভালোবাসা আর শ্রদ্ধায় সমাহিত করা হলো মুক্তিযুদ্ধে অসামান্য অবদান রাখা ফাদার মারিনো রিগনের দেহাবশেষ।...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is