ঢাকা, বুধবার, ১৮ জুলাই ২০১৮, ৩ শ্রাবণ ১৪২৫

2018-07-17

, ৪ জিলকদ্দ ১৪৩৯

রাষ্ট্র, সমাজ ও পরিবারে অবহেলিত হচ্ছে হিজড়ারা

প্রকাশিত: ১০:১৪ , ১৪ জানুয়ারী ২০১৮ আপডেট: ০১:৫৬ , ১৪ জানুয়ারী ২০১৮

নিজস্ব প্রতিবেদক : না ঘরে, না বাইরে- সমাজের কোথাও সামান্য মর্যাদা খুঁজে পাওয়া আজও দুষ্কর হিজড়াদের। আধুনিক ধ্যান ধারণার যুগেও জন্মসূত্রে ব্যতিক্রমী দৈহিক বৈশিষ্ট্য পাওয়া ক্ষুদ্র এই জনগোষ্ঠীকে নিয়ে আছে কুসংস্কার, দেখা হয় বাঁকা চোখে। কোন পরিবারে এমন শিশু জন্ম নিলে শুধু তাঁর ভাগ্যেই নয়, গোটা পরিবারের জন্য তা নিয়ে আসে নানামুখী দুর্ভোগ। চিকিৎসা বিজ্ঞানের বিশেষজ্ঞরা বলছেন, কেন একজন মানুষ এমন ব্যতিক্রম হয় সে সম্পর্কে জনসচেতণতা পাল্টাতে পারে সমাজের চিরাচরিত নেতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গি।

কোন হিজড়া বা তাঁর পরিবারের কেউ বা কোন একজন যথার্থ জন হিজড়া সন্তান হলে সমাজের কুসংস্কার নিয়ে বলবে। হিজড়াদের নিয়ে এমন কাল্পনিক ধ্যান ধারণা রক্ষণশীল সমাজের আদি থেকে বিদ্যমান। ওদের দেখলেই তাচ্ছিল্যের সাথে হিজড়া সম্বোধন করে। বিজ্ঞানের চরম আধুনিকতার এই যুগেও যেই ধারণা সাধারণে প্রতিষ্ঠা করা যায়নি তা হলো- জন্মসূত্রে নানা শারীরিক ও মানিসিক প্রতিবন্ধীদের মতই ভূমিষ্ঠ হয় হিজড়ারাও, শুধু তাদের প্রতিবন্ধকতার ক্ষেত্রটি ভিন্ন।

ভূমিষ্ঠ হলে একজন শিশুকে ছেলে বা মেয়ে বলে তাঁর লিঙ্গ পরিচয় খোঁজে সবাই। হিজড়াদের ক্ষেত্রে তা সম্ভব নয় বলে তাদের তৃতীয় লিঙ্গ হিসেবে সম্মানজনক একটি পরিচয়ের জায়গা উদারনৈতিক সমাজগুলোতে তৈরি হলেও দেশে আজও হয়নি। এই তৃতীয় লিঙ্গের মানুষদের শারীরিক গঠন মূলত তিন ধরণের।

মনবিজ্ঞানীদের মতে, ব্যতিক্রমী শারীরিক বৈশিষ্ট্যের কারণে তৃতীয় লিঙ্গের মানুষেরা যেমন পরিবারে গ্রহণযোগ্যতা পায় না, তেমনি সমাজেও। যা তাদের মানসিক গড়নকেও পাল্টে দেয়।

সদ্য ভূমিষ্ঠ একজন শিশু ব্যতিক্রমী তৃতীয় লিঙ্গ কিনা তা ক্ষেত্র বিশেষে তাৎক্ষণিকভাবে বোঝা যায় আবার কখনও তার বেড়ে ওঠার সাথে সাথে সেসব বৈশিষ্ট্য দৃশ্যমান হয়।

সধারণত হিজড়ারা পরিবারের কাছে অনাকাক্সিক্ষত হয়ে ছিটকে পড়ে উন্মুক্ত সমাজে, যেখানে যেন অস্পৃশ্য এক নিগৃহীতের জীবন কাটায়। হিজড়াদের নিয়ে নানা উপলক্ষে সরকারি-বেসরকারি পর্যায়ে সুন্দর ভাবনা ও প্রত্যাশার কথা শোনা যায়। কিন্তু ইমু, সোনালী, আনুর মত লাখো তৃতীয় লিঙ্গের জীবনমানে উন্নতির আলোর রেখা ফুটে ওঠেনি আজও- এটাই হলো বাস্তবতা।

 

এই বিভাগের আরো খবর

আম চাষে আগ্রহ বাড়ছে

নিজস্ব প্রতিবেদক: দেশে বাণিজ্যিকভাবে আমের চাষ ক্রমেই বৃদ্ধি পাচ্ছে। নিরাপদ, নিশ্চিত বাণিজ্যের স্বার্থে চাষের ক্ষেত্রে পোকা মাকড় এবং...

বিলুপ্ত হয়েছে অনেক জাতের আম

নিজস্ব প্রতিবেদক: আমের ভরা মৌসুম চলছে। দেশীয় মৌসুমী এই ফলের চাষ, বাণিজ্য ও ব্যবহারের ধরনে মাত্র কয়েক দশকে বিপুল পরিবর্তন এসেছে। মৌসুমী ফলের...

কবরের রক্ষণাবেক্ষণ ও পরিচর্যার পেছনের কুশীলব শুধু টাকা!

নিজস্ব প্রতিবেদক: স্বজন-বন্ধুরা যখন প্রিয়জনের লাশ কাধে করে কবরস্থানে আসেন সেটা এক বিশেষ মুহূর্ত। তখন তাদের মনের গভীরে বেদনা ও ভালোবাসায়...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is