ঢাকা, শনিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৮, ৫ কার্তিক ১৪২৫

2018-10-20

, ৯ সফর ১৪৪০

সেলুন থেকে হতে পারে যে ৬টি ইনফেকশন

প্রকাশিত: ১০:৪১ , ১৩ মে ২০১৮ আপডেট: ১০:৪১ , ১৩ মে ২০১৮

অনলাইন ডেস্ক: ফ্রেশ হতে  সেলুনে যান প্রায় সবাই। কিন্তু এই ফ্রেশ হতে গিয়ে সেখান থেকে আপনি ইনফেকশনে আক্রান্ত হতে পারেন। আসুন জেনে নেই সেলুন থেকে ছড়াতে পারে এমন ছয়টি ইনফেকশন সম্পর্কে।

ফলিকিউলিটিসঃ সেলুন থেকে ফলিকিউলিটি নামক রোগ হতে পারে। ডার্মাটোলজিক, এমওএইচএস, কসমেটিক ও লেজার সার্জারির ডার্মাটোলজিস্ট অ্যান্থনি এম. রসি’র মতে, ‘ফলিকিউলিটিস হচ্ছে, চুলের গ্রন্থিকোষের প্রদাহ যা অধিকাংশ ক্ষেত্রে ব্যাকটেরিয়াল ইনফেকশন দ্বারা হয়ে থাকে। এটি দেখতে ছোট সাদা ব্রণের মতো (পুঁজে পূর্ণ থাকে)।’ এটি সাধারণত স্টাফাইলোকক্কাস ব্যাকটেরিয়া দ্বারা হয়ে থাকে, যা সাধারণত যথাযথভাবে স্যানিটাইজ করা হয়নি এমন চিরুনি, কাঁচি অথবা রেজারের মাধ্যমে ছড়াতে পারে।
বারবার’স ইচঃ যদি আপনি দেখেন যে আপনার নাপিত চিরুনি বা রেজারকে লিকুইড সল্যুশন অথবা তরল দ্রবণে ডোবাচ্ছেন, তাহলে এটি একটি ভালো নিদর্শন যে তারা সঠিকভাবে তাদের যন্ত্রপাতি জীবাণুমুক্ত করেন। যদি তারা তা না করে, আপনার বারবার’স ইচ হতে পারে। মাউন্ট সিনাই হসপিটালের ডার্মাটোলজিস্ট জশুয়া জেইকনার বলেন, ‘বারবার’স ইচ হচ্ছে এক প্রকার ফলিকিউলিটিস যা জীবাণুমুক্ত করা হয়নি এমন ইনস্ট্রুমেন্ট থেকে সংক্রমিত হওয়ার পর আপনার বিয়ার্ড এরিয়া অথবা স্কাল্পে ডেভেলপ হতে পারে। ব্যাকটেরিয়া চুলের গ্রন্থিকোষে আক্রমণ করে, যার ফলে রেড বাম্প ও পুঁজযুক্ত ব্রণ বা ফুসকুড়ি ওঠতে পারে এবং তারা চুলকানিমূলক হতে পারে।’ হালকা বারবার’স ইচের চিকিৎসা টপিক্যাল অ্যান্টিবায়োটিক দিয়ে কার্যকরভাবে করা যায়, কিন্তু এটি তীব্র হলে ওরাল অ্যান্টিবায়োটিক ট্রিটমেন্ট প্রয়োজন হবে।
টিনি ক্যাপিটাইসঃ সেলুনে ভালোভাবে স্যানিটাইজ করা হয়নি এমন চিরুনি বা টাওয়েলের মাধ্যমে টিনি ক্যাপিটাইস ছড়াতে পারে। ডা. রসি বলেন, ‘টিনি ক্যাপিটাইস হচ্ছে স্কাল্পের একটি ফাঙ্গাল ইনফেকশন যার আকৃতি রিংওয়ার্ম বা দাদের মতো হতে পারে অথবা এটি দেখতে লাল স্তরপূর্ণ চুলকানিযুক্ত প্যাচের মতো।’  তীব্র ক্ষেত্রে এটি স্থায়ী দাগ ও চুল পড়ার কারণ হতে পারে। এর চিকিৎসায় প্রায়ক্ষেত্রে ওরাল অ্যান্টিফাঙ্গাল ওষুধের প্রয়োজন হয়। ডা. জেইকনার বলেন, চুলের গ্রন্থিকোষের গভীরে ফাঙ্গাস প্রবেশ করে বলে শুধুমাত্র টপিক্যাল ওষুধ দিয়ে এর চিকিৎসা করা কঠিন হতে পারে।’
ইম্পিটিগোঃ ইম্পিটিগো হচ্ছে, একটি ব্যাকটেরিয়াল ইনফেকশন যা প্রধানত স্টাফ অথবা স্ট্রেপ ব্যাকটেরিয়া দ্বারা হতে পারে। এটি অল্পবয়সি ছেলেমেয়েদের মধ্যে অধিক কমন হলেও আপনার যেকোনো বয়সে এটি হতে পারে এবং এটি ছড়ানোর সর্বাধিক কমন মাধ্যম হচ্ছে- ত্বক থেকে ত্বকের সংস্পর্শ, কাপড় অথবা টাওয়েল। ডা. জেইকনার বলেন, ‘রোগীর ত্বকে হলুদ অথবা মধু বর্ণের ক্রাস্ট ডেভেলপ হতে পারে। এটি চিকিৎসা করা গুরুত্বপূর্ণ, কারণ এটি অত্যধিক ছোঁয়াচে।’ টপিক্যাল অ্যান্টিবায়োটিক অয়েন্টমেন্ট দিয়ে এর চিকিৎসা সহজেই করা যায়।
টিটেনাসঃ সেলুনের জং-ধরা যন্ত্রপাতির মাধ্যমেও আপনার টিটেনাস হতে পারে। ডা. রসি বলেন, ‘টিটেনাস একটি ব্যাকটেরিয়াল ইনফেকশন যা সাধাণত ত্বক কেটে যাওয়ার পর হয়ে থাকে। মাটির ব্যাকটেরিয়ার কারণে এটি হতে পারে, কিন্তু অপরিচ্ছন্ন মরচে ধরা ইনস্ট্রুমেন্টের মাধ্যমেও এটি হতে পারে।’
হার্পিসঃ আপনি কি ম্যানস্কেপিং করতে আগ্রহী? যদি আপনি ওয়াক্সিং করতে চান, তাহলে বলা প্রয়োজন যে এ বিষয়ে আপনার সতর্ক থাকার প্রয়োজন আছে। ডা. রসি বলেন, ‘ওয়াক্সিং থেকে হার্পিস অথবা ব্যাকটেরিয়াল ইনফেকশন ছড়ানোর ঘটনা ঘটেছে।’ নিশ্চিত হয়ে নিন যে অন্য কাউকে ওয়াক্সিং করা জিনিস দিয়ে আপনাকে ওয়াক্সিং করা হবে না।
ইনফেকশন থেকে নিরাপদ থাকতে করণীয়
সেলুনের ইনস্ট্রুমেন্ট নিয়মিত স্যানিটাইজ করা হয় কিনা তা সম্পর্কে নিশ্চিত হোন। যন্ত্রপাতি জীবাণুমুক্ত করার জন্য বারবিসাইড গুরুত্বপূর্ণ। ডা. রসি বলেন, ‘অ্যালকাইল ডিমেথাইল বেনজিল অ্যামোনিয়াম ক্লোরাইডের সক্রিয় উপাদান ব্যাকটেরিয়া, ফুঙ্গি ও ভাইরাস ধ্বংস করতে কার্যকরী।’ সেখানে ইনস্ট্রুমেন্ট জীবাণুমুক্ত করা হচ্ছে কিনা তা সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়া অধিক গুরুত্বপূর্ণ। কিছু সেলুনে অটোক্লেভ বা মেশিন থাকতে পারে যা হাই প্রেশার স্টিমের মাধ্যমে ইনস্ট্রুমেন্ট জীবাণুমুক্ত করে। ব্লেড জীবাণুমুক্ত করা হয়েছে কিনা অথবা প্রত্যেক লোকের ক্ষেত্রে নতুন ব্লেড ব্যবহার করা হয় কিনা তা নাপিতকে জিজ্ঞেস করুন।
সেলুনে যাওয়ার পূর্বে আপনার ত্বক চেক করুন। ডা. জেইকনার বলেন, ‘কোনো ইনফেকশন ডেভেলপ হওয়ার ঝুঁকি হ্রাস করতে সেলুনে যাবেন না যদি আপনার ত্বকে কোনো কাঁটাছেড়া থাকে, কারণ এটি ইনফেকশন ডেভেলপের ঝুঁকি বৃদ্ধি করতে পারে।’ আঁচড় বা ফোঁড়ার ক্ষেত্রেও এ সাবধানতা অবলম্বন করুন।
আপনার নাপিতের ত্বকও চেক করুন। ডা. জেইকনার বলেন, ‘আপনার নাপিতের হাতে ইনফেকশন ছড়াতে পারে এমন কোনো কাঁটাছেড়া অথবা ক্ষত আছে কিনা নিশ্চিত হোন।’
সেলুন পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন আছে কিনা তা লক্ষ্য করুন। নোংরা সেলুন এড়িয়ে চলুন। ডা. রসি বলেন, ‘অপরিষ্কৃত জায়গা ও হেয়ার ক্লিপার, মরচে ধরা ইনস্ট্রুমেন্ট, রক্তের দাগ ও ময়লা টাওয়েল হচ্ছে কোনো সেলুন এড়িয়ে যাওয়ার জন্য সতর্ক সংকেত।’
সূত্র : ম্যান’স হেলথ

এই বিভাগের আরো খবর

পান খাওয়ার উপকারিতা

ডেস্ক প্রতিবেদন: প্রাচীন কাল থেকেই পান পাতা মানুষের পছন্দের খাবার হিসেবেই বিবেচিত হয়ে আসছে। কিন্তু অনেকে মনে করেন পান খাওয়া স্বাস্থ্যের...

ঘরে বানান ‘মেয়োনেজ’

ডেস্ক প্রতিবেদন: দোকানে মেয়োনেজ সহজলভ্য হলেও বিভিন্ন ধরনের কেমিক্যাল উপাদান ব্যবহার করা হয় বলে তা এড়িয়ে যাওয়াই ভাল। নানান ধরনের রান্নায়...

শীতকালে ত্বক ভাল রাখে যেসব সবজি

ডেস্ক প্রতিবেদন: শীতকাল শুরু হবে আর কিছু দিনের মধ্যে; হালকা হালকা শীত পড়ছে। এর সাথে শীতকালে শুষ্ক শীতল হাওয়া ও বাতাসে বেড়ে যাওয়া ধুলাবালুর...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is