ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ জুলাই ২০১৮, ২ শ্রাবণ ১৪২৫

2018-07-16

, ৩ জিলকদ্দ ১৪৩৯

আবারও আইনি সমস্যায় পড়ছেন সালমান

প্রকাশিত: ০৫:০৩ , ০৮ জুলাই ২০১৮ আপডেট: ০৫:০৩ , ০৮ জুলাই ২০১৮

বিনোদন ডেস্ক: বলিউড সুপারস্টার সালমান খান ব্যক্তি জীবনে অনেকবারই আইনি জটিলতায় জড়িয়েছেন। কখনও বিরল প্রজাতির চিত্রা হরিণ হত্যার দায়ে আবার কখনও ফুটপাথে ঘুমন্ত মানুষের ওপর গাড়ি চালিয়ে। আর এবার তার প্যানভেলে অবস্থিত ফার্মহাউসের কারণে নতুন করে আইনি জটিলতায় পড়তে যাচ্ছেন তিনি। 

সম্প্রতি অর্পিতা ফার্মে অডিট চালিয়েছে মহারাষ্ট্র বন বিভাগ। সালমান ছাড়ায়ও এই ফার্মহাউসের মালিকানায় রয়েছেন তার বাবা সেলিম খান, বোন অর্পিতা খান, আলভিরা খান, ভাই আরবাজ খান, সোহেল খান ও মা হেলেন। এরপর বন বিভাগের জায়গায় অবৈধভাবে কনক্রিটের ভবন নির্মাণের জন্য খান পরিবারকে কারণ দর্শানোর নোটিশ পাঠিয়েছে তারা। নোটিশের জবাবের জন্য সাতদিন সময় বেঁধে দেওয়া হয়েছে। ভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যম এ তথ্য জানিয়েছে।

জানা গেছে, ২০০৩ সালে জায়গাটি ইকো-সেনসিটিভ জোন হিসেবে ঘোষণা করা হয়। এরপর থেকে ওই জায়গায় কনক্রিটের ভবন নির্মাণের ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এরপর থেকে জায়গাটিতে নয়টি ভবন নির্মাণ করা হয়েছে।

অর্পিতা ফার্মের বিরুদ্ধে বন্য আইন অমান্য করার অভিযোগ দায়ের হয়েছে। বন বিভাগের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, মহারাষ্ট্র সরকারের নির্দেশে গত বছর ৩ এপ্রিল থেকে ভবনগুলোর ওপর তদারকি করা হচ্ছিল।

নোটিশে বলা হয়েছে, বন আইন ভেঙে ফার্মহাউস তৈরি করতে সিমেন্ট, কংক্রিট আনা হয়েছে। একইসঙ্গে ওই ভবন নির্মাণ করার জন্য অন্যান্য আইনও ভাঙা হয়েছে। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ওই নোটিশের জবাব না দেওয়া হলে, মালিকপক্ষের কিছু বলার নেই বলে ধরে নেওয়া হবে। এক্ষেত্রে আইন অনুযায়ী উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

তবে এ প্রসঙ্গে সালমানের বাবা সেলিম খান বলেছেন, ‘ফার্মহাউসটি নির্মাণের জন্য সব আইনই মানা হয়েছে। প্রয়োজনীয় ফি-ও জমা দেওয়া হয়েছে। কোনোভাবেই এটি কোনো বেআইনি নির্মাণ নয়।’

এই বিভাগের আরো খবর

থাইল্যান্ডের গুহায় আটকে পড়া কিশোরদের নিয়ে সিনেমা হবে হলিউডে

বিনোদন ডেস্ক: থাইল্যান্ডের উত্তরাঞ্চলের জলমগ্ন গুহায় স্থানীয় ফুটবল দল ‘ওয়াইল্ড বোয়া’র দীর্ঘ আটকাবস্থা ও উদ্ধার অভিযান আলোচিত হয়েছে...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is