ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০১৯, ১২ বৈশাখ ১৪২৬

2019-04-24

, ১৮ শাবান ১৪৪০

প্রবীণদের সুখস্মৃতি হারিয়ে যাওয়া ঐতিহ্য বায়োস্কোপ

প্রকাশিত: ০৯:১৩ , ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ আপডেট: ১২:৩০ , ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক : গ্রাম-বাংলার হারিয়ে যাওয়া এক ঐতিহ্যের নাম বায়োস্কোপ। হাত দিয়ে প্যাডেল ঘুরিয়ে দর্শনীয় স্থান, কিংবা বিভিন্ন চিত্র কর্মের ছবি দেখানো হতো এই বায়োস্কোপে। গ্রাম বাংলার জনপ্রিয়সব কাহিনী ও কাল্পনিক চিত্রও দেখানো হতো এই মাধ্যমে। মুড়ির টিনের মতো একটি বাক্সের কাচের জানালায় চোখ রাখলেই ছবি আর কন্ঠের বর্ণনায় জীবন্ত হয়ে উঠতো এক অজানা পৃথিবী।

চোখ ধাঁধাঁনো আধুনিকতার এমন সময়েও গ্রামীণ জনপদে বায়োস্কোপ দেখতে মানুষের ভীড়   চোখে পড়ে। এই প্রজন্মতো বটেই, এখনো বায়োস্কোপ দেখতে বসে যান প্রবীনরাও।

চার কোনা একটি টিনের বাক্সে গোলাকৃতি ৪ থেকে ৬টি কাচের জানালা। তার মধ্যে দেশ বিদেশের বিভিন্ন দর্শনীয় স্থান, রাজা বাদশা, জনপ্রিয় নায়ক নায়িকা, বিভিন্ন ধর্মীয় পবিত্র স্থাপনা, মৃত্যুর পরের নানা কাল্পনিক কাহিনীর ৩৫ থেকে ৪০টি ছবি জোড়া দিয়ে লাগানো হয়। বাক্সের মধ্যে দুই পাশে দুটি ঘুড়ির লাটাইয়ে তা পেচিয়ে প্রদর্শন করা হয়। বাইরে থেকে স্বচ্ছ কাচের ওপর চোখ রাখলে কল্পনার রাজ্যে হারিয়ে যতে হয় দর্শকদের।

বিনোদনের এই মাধ্যমটি আমাদের দেশে বায়োস্কোপ নামে অধিক পরিচিতি পেলেও ইংরেজিতে একে পিপ শো বলে অভিহিত করা হয়। যার অর্থ উঁকি দিয়ে দেখা। জানাযায়, পঞ্চদশ শতাব্দীতে ইউরোপের একটি দেশের রাস্তা দিয়ে এক নগ্ন নারীর হেটে যাওয়র দৃশ্য বদ্ধ ঘরের ছিদ্র দিয়ে দেখেন এক লোক। ছিদ্র দিয়ে দেখার সেই ধারণা থেকেই পরবর্তিতে তৈরী হয় পিপ-শো বা বায়োস্কোপের বাক্স। ইউরোপে ১৫ থেকে ১৭ শতাব্দীতে বায়োস্কোপ ব্যাপক জনপ্রিয় হয়ে ওঠে। ১৮৯৪ সালের পর এর জনপ্রিয়তা বাড়তে থাকায় বিশ্বব্যাপি এর প্রদর্শনী শুরু হয়। অনেকে বায়োস্কোপকে চলচ্চিত্র আবিস্কারের পূর্ব রুপ বলে ধারণা করেন।

উপমহাদেশে চলচ্চিত্রের জনক মানিকগঞ্জের হীরালাল সেন অষ্টাদশ শতাব্দীর শেষ দিকে তার এলাকায় বায়োস্কোপ প্রদর্শন করেন।

স্বাধীনতার আগে ভারত থেকে আঁতশী কাচ এনে টিন আর কাঠ দিয়ে এসব বায়োস্কোপ তৈরী করে গ্রামে-গঞ্জের আর মেলায় প্রদর্শন করতো একদল মানুষ। অনেকে এই বায়োস্কোপ প্রদর্শনের আয় দিয়ে সংসার চালাতেন।

 

এই বিভাগের আরো খবর

বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর পাল্টাতে থাকে রাজনীতির দৃশ্যপট

নিজস্ব প্রতিবেদক: আদর্শিক লড়াইয়ের জায়গায় বৈষয়িক প্রাপ্তি-অপ্রাপ্তি বড় হয়ে উঠতে থাকলে এক সময় ছাত্র রাজনীতি ও আন্দোলন স্বাধীন বাংলাদেশে পথ...

ছাত্রদের টার্গেট করে হত্যা নির্যাতন চালায় পাকিস্তানীরা

নিজস্ব প্রতিবেদক: ঢাকা অঞ্চল কেন্দ্রিক ছাত্র রাজনীতি ও আন্দোলন স্বাধীনতার কেন্দ্রীয় সংগ্রামকে সরাসরি শক্তিশালী করেছে। একাত্তরের...

স্বাধীনতার সশস্ত্র সংগ্রামের নেতৃত্ব ছিল ছাত্র সমাজের হাতে

নিজস্ব প্রতিবেদক: আবারও আলোচনায় ছাত্র রাজনীতি। কারণ, কিছুদিন পরই দেশের দ্বিতীয় সংসদ খ্যাত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ ডাকসু...

ছাত্রসংসদ চালু হলে এখানে বন্ধ হবে হানাহানির রাজনীতি

নিজস্ব প্রতিবেদক: ব্রিটিশ বিরোধী অন্দোলন থেকে শুরু করে মুক্তিযুদ্ধ ও সর্বশেষ স্বৈরাচার বিরোধী অন্দোলনে সিলেট বিভাগের ছাত্রনেতারা কাঁধে...

সিলেটের ছাত্র রাজনীতিতেও ঢুকে পড়েছে সুবিধা আদায়ের কৌশল

নিজস্ব প্রতিবেদক: ব্রিটিশ বিরোধী আন্দোলন থেকে পাকিস্তান প্রতিষ্ঠা, তৎপরবর্তীতে পাকিস্তান বিরোধী আন্দোলনের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশের জন্ম এবং...

ডাকসু নির্বাচন আশা জাগিয়েছে সিলেটের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে

নিজস্ব প্রতিবেদক: ডাকসু নির্বাচনের পুনরুজ্জীবন চাঞ্চল্য ও আশা জাগিয়েছে সিলেট অঞ্চলের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে। সেখানের অকেজো...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is