ঢাকা, রবিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১২ ফাল্গুন ১৪২৫

2019-02-24

, ১৮ জমাদিউস সানি ১৪৪০

জমজমাট বাণিজ্য মেলা, মূল্য ছাড়ের হিড়িক

প্রকাশিত: ০৩:৩৪ , ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ আপডেট: ০৩:৩৫ , ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক : জমে উঠছে ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা। সকাল থেকে নানা বয়সী মানুষের পদচারণায় মুখরিত হয়ে ওঠেছে প্রতিটি স্টল ও প্যাভিলিয়ন। শেষ মুহূর্তে মূল্যছাড় বেশি দেয়ায় মেলায় পরিবার-পরিজন নিয়ে কেনাকাটা করতে এসেছেন অনেকেই। এতদিন গৃহস্থালি আর প্রসাধনী পণ্যের স্টলগুলোতে ভিড় থাকলেও শেষদিকে দেশি-বিদেশি সব ধরনের স্টলে ভিড় দেখা গেছে।

২৪তম ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলার পর্দা নামছে আর একদিন পরই। তাই মেলার শেষ সময় ছুটির দিন হওয়ায় ক্রেতা-দর্শনার্থীরা ঘোরাঘুরির পাশাপাশি কেনাকাটা সেরে নিচ্ছেন।

মেলায় বেড়েছে বেচাকেনা। বিশেষ করে গৃহস্থালি পণ্য ও তৈজসপত্রের স্টল-প্যাভেলিয়নগুলোতে কেনাবেচা হচ্ছে সবচেয়ে বেশি। প্রেসার কুকার, নন স্টিকি ফ্রাই প্যান, রাইস কুকারসহ নানা অ্যালুমিনিয়াম পণ্যের প্রতি মানুষের ঝোঁক বেশি দেখা গেছে।

শেষ মুহুর্তে ক্রেতারা ফার্নিচার, তৈরি পোশাকসহ দেশি-বিদেশি সব ধরনের স্টল ও প্যাভিলিয়নে ভিড় করছেন। মেলার পরিবেশ নিয়ে সন্তোষ প্রকাশও করেন তারা।

অন্যদিকে, বিক্রেতাদের মধ্যে রয়েছে মালামাল শেষ করার তাড়া। তাই তারা তুলনামূলক কম লাভেও মালামাল বিক্রি করে দিচ্ছেন। তবে এবারের মেলায় বিক্রি নিয়ে স্টল মালিকদের মধ্যে রয়েছে ভিন্ন মত। কোন কোন স্টল মালিক আশানুরুপ বিক্রির কথা বললেও অনেকে আবার হতাশার কথাও জানান।

বিকেলে মেলায় লোকসমাগম আরো বাড়বে বলে আশা বিক্রেতাদের। মেলার পর্দা নামার কথা রয়েছে আগামীকাল শনিবার।  

 

এই বিভাগের আরো খবর

সরিয়ে নেয়া হয়েছে ওয়াহেদ ম্যানসনের ভূগর্ভস্থ গুদামের রাসায়নিক

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজধানীর চকবাজারে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডের তিনদিন পর ভবনের ভূ-গর্ভস্থ গুদামে থাকা বিভিন্ন ধরনের রাসায়নিকের ড্রাম ও প্যাকে...

শিশু প্রহরের শেষ দিন শিশুদের পদচারণায় মুখর গ্রন্থমেলা

নিজস্ব প্রতিবেদক: অমর একুশে গ্রন্থমেলায় শিশু প্রহরের শেষ দিনে শিশুদের পদচারণায় মুখর ছিল।  মেলায় অভিভাবকদের হাত ধরে ঘুরে ঘুরে পছন্দের বই...

এখনও সিদ্ধান্ত হয়নি কেমিক্যালের গোডাউন সরিয়ে নেয়ার বিষয়ে

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজধানীর চকবাজারের অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্ত ভবন ‘ওয়াহেদ ম্যানশনের’ বেজমেন্টে কেমিক্যালের গোডাউনের যে সন্ধান পাওয়া...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is