ঢাকা, রবিবার, ২১ জুলাই ২০১৯, ৬ শ্রাবণ ১৪২৬

2019-07-20

, ১৭ জিলকদ ১৪৪০

প্রতিদিন মটরশুঁটি কেন খাবেন?

প্রকাশিত: ০৯:৫৫ , ১২ মার্চ ২০১৯ আপডেট: ০৯:৫৫ , ১২ মার্চ ২০১৯

ডেস্ক প্রতিবেদন: শীতের জনপ্রিয় সবজি মটরশুঁটি। খেতে যেমন মজা তেমনি পুষ্টিগুণও অনেক। নিয়মিত মটরশুঁটি খেলে ক্যানসার প্রতিরোধ, ওজন নিয়ন্ত্রণসহ নানাধরনের স্বাস্থ্যসমস্যা দূর হয়। আসুন, জেনে নেই মটরশুঁটির গুণাগুণ সম্পর্কে।

ওজন কমায়
মটরশুঁটিতে চর্বি নাই বললেই চলে। ১ কাপ মটরশুঁটিতে প্রোটিন, আঁশ ও পুষ্টি উপাদান থাকলেও শক্তি থাকে ১০০ ক্যালরিরও কম। তাই মটরশুঁটি ওজন নিয়ন্ত্রণে দারুণ কার্যকর।

পাকস্থলীর ক্যান্সার প্রতিরোধ করে
মটরশুঁটির দানাতে পলিফেনন থাকে, যা ক্যান্সার প্রতিরোধে ভূমিকা রাখে। তাছাড়া মটরশুঁটিতে রয়েছে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট ও অ্যান্টি-ইনফ্লামেটরি, যা সব ধরনের ক্যান্সারের ঝুঁকি কমায়। এজন্য প্রতিদিন অন্তত ২ মিলিগ্রাম মটরশুঁটি খাওয়া ভালো।

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়
মটরশুঁটিতে থাকে জিংক, আয়রন ও ক্যালসিয়ামের মতো গুরুত্বপূর্ণ উপাদান। এছাড়াও এতে আছে উচ্চ পরিমাণে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট। তাই নিয়মিত মটরশুঁটি খেলে নানা ধরনের অসুখ-বিসুখ থেকে রক্ষা পাওয়া যায়।

বয়স কমায়
মটরশুঁটিতে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট, ফেনোলিক এসিড, পলিফেনন, ক্যারোটিন ও ক্যাটিসিন নামক উপাদান থাকে। তাই প্রতিদিন মটরশুঁটি খেলে সহজে বয়সের ছাপ পড়েনা ও ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ায়।

সন্তান ধারণের আগে
মটরশুঁটিতে প্রচুর পরিমাণে ফলিক এসিড থাকে। ফলিক এসিড হবু মা ও সন্তানের জন্য অত্যন্ত উপকারী। তাই সন্তান ধারণের আগে থেকেই প্রতিদিন মটরশুঁটি খেতে হবে।

হজমক্ষমতা বাড়ায়
মটরশুঁটিতে থাকে ফাইবার, যা হজমে সাহায্য করে। তাই যাদের কোষ্ঠকাঠিন্য আছে তাদের জন্য মটরশুঁটি খুবই উপযোগি খাবার।

চোখের জন্য উপকারী
ভিটামিন এ চোখের জন্য খুব উপকারী একটি উপাদান। মটরশুঁটিতে পর্যাপ্ত পরিমাণে ভিটামিন এ থাকে। নিয়মিত মটরশুঁটি খেলে দৃষ্টিশক্তি বাড়ে।

ত্বকের সুরক্ষায়
মটরশুঁটি ত্বকের জন্য ভালো। এতে থাকে ভিটামিন সি, যা ত্বকের সৌন্দর্য বাড়ায়। তাছাড়া কোথাও পুড়ে গেলে দ্রুত সারিয়ে ফেলার জন্য মটরশুঁটির জুড়ি নেই। শরীরের কালো দাগ দূর করতেও মটরশুঁটি কার্যকর।

মটরশুঁটি শীতকালীন সবজি হলেও কোল্ড স্টোরেজ সুবিধার জন্য এখন সারাবছরই পাওয়া যায়। অনেকে ডিপ ফ্রিজে সংরক্ষণ করেও সারাবছর মটরশুঁটি খেয়ে থাকেন। ডিপ ফিজে কাঁচা মটরশুঁটির দানা ছাড়িয়ে সরাসরি রাখতে পারেন। নরমাল ফ্রিজে রাখতে মটরশুঁটি গরম পানিতে হালকা সেদ্ধ করে নেবেন, তা না হলে অঙ্কুরিত হয়ে যাবে।

 

এই বিভাগের আরো খবর

এবছর ডেঙ্গু আক্রান্তের সংখ্যা দ্বিগুণ, বেশি ঝুঁকিতে শিশুরা

নিজস্ব প্রতিবেদক: ডেঙ্গু রোগে আক্রান্তের সংখ্যা গত বছরের তুলনায় এ বছর প্রায় দ্বিগুণ। সরকারি হিসাবে, জানুয়ারি থেকে এ পর্যন্ত আক্রান্তের...

১১টি কোম্পানির দুধে সিসা ও ক্যাডমিয়াম: হাইকোর্টে রিপোর্ট

নিজস্ব প্রতিবেদক: সরকারের মান নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিএসটিআই অনুমোদিত ১১টি কোম্পানির পাস্তুরিত দুধে মানবস্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকারক সিসা ও...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is