ঢাকা, সোমবার, ২৭ মে ২০১৯, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

2019-05-26

, ২১ রমজান ১৪৪০

শাহজালাল বিমানবন্দরে যাত্রীসেবার মান নিয়ে গণশুনানি, অনিয়মের নানা অভিযোগ

প্রকাশিত: ০৮:২০ , ২৮ এপ্রিল ২০১৯ আপডেট: ১০:৫৭ , ২৮ এপ্রিল ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক : শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ইমিগ্রেশন ডেস্কে অসহযোগিতার পাশাপাশি লাগেজ নিয়ে নানারকম ভোগান্তির শিকার হতে হয় বলে অভিযোগ করলেন যাত্রীরা। বিমানবন্দরে যাত্রীসেবার মান নিয়ে সিভিল এভিয়েশন কর্তৃপক্ষ আয়োজিত গণশুনানিতে উঠে এলো এসব অভিযোগ। এসময় সিভিল এভিয়েশন চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল এম নাইম হাসান জানালেন, যাত্রী ভোগান্তি দূর করা ও সংশ্লিষ্টদের জবাবদিহিতার আওতায় আনতেই এই গণশুনানির আয়োজন।

শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অনিয়মের অভিযোগ নতুন নয়। বিমানবন্দরে যাত্রীসেবার মান নিয়ে সিভিল এভিয়েশন কর্তৃপক্ষ আয়োজিত গণশুনানিতে রোববার আবারো ওঠে এলো এসব অভিযোগ। বিমানবন্দরের বহির্গমন টার্মিনালে ছিলো গণশুনানির এই আয়োজন।

এসময় ইমিগ্রেশন ডেস্কে দুর্ব্যবহার, লাগেজ কাটা, লাগেজ সময় মতো না পাওয়া, হারানো লাগেজ ফিরে পেতে হয়রানি ও ভোগান্তির কথা তুলে ধরেন যাত্রীরা।

বিমানবন্দর সশ্লিষ্ট বিভিন্ন সংস্থার প্রতিনিধিরাও তাদের বিভিন্ন সমস্যার কথা তুলে ধরেন। কোন যাত্রীর লাগেজ সময় মতো পাওয়া না গেলে বা হারানো গেলে সাথে সাথে ম্যাজিস্ট্রেট কার্যালয়ে অভিযোগ করার পরামর্শ দেন বিমানবন্দরের ম্যাজিস্ট্রেট। তিনি জানান, ২১ দিনের মধ্যে সংশ্লিষ্ট এয়ারলাইন্স লাগেজ খুঁজে যাত্রীর বাড়ি পৌঁছে না দিলে আইনী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

গণশুনানিতে সিভিল এভিয়েশনের চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল এম নাইম হাসান বলেন, যাত্রীসেবার মান বাড়াতেই এই আয়োজন। এর ফলে সংশ্লিষ্ট সব সংস্থার জবাবদিহিতা নিশ্চিত হবে।

যাত্রীদের অভিযোগ শুনে সমস্যার সমাধানে গণশুনানির এ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলেও জানান সিভিল এভিয়েশনের চেয়ারম্যান।

 

এই বিভাগের আরো খবর

ঝিনাইগাতীর ‘কাঁটাখালী সেতু’ পুন:নির্মাণ না হওয়ায় দুর্ভোগ 

শেরপুর প্রতিনিধি: শেরপুরের ঝিনাইগাতীর ‘কাঁটাখালী সেতু’ পুন:নির্মাণ না হওয়ায় দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে ১৫ গ্রামের প্রায় ৩০ হাজার মানুষকে।...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is