ঢাকা, শনিবার, ২৫ মে ২০১৯, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

2019-05-24

, ১৯ রমজান ১৪৪০

বগুড়ায় বোরো ধানের বাম্পার ফলন

প্রকাশিত: ০১:০৯ , ১০ মে ২০১৯ আপডেট: ০৩:৩০ , ১০ মে ২০১৯

বগুড়া প্রতিনিধি: চলতি মৌসুমে বগুড়ায় বোরো ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে। তবে ফলন বেশি হলেও দাম নিয়ে শংকায় চাষীরা। তারা বলছেন, উৎপাদন খরচের তুলনায় বাজারে দাম কম। খাদ্য বিভাগের কর্মকর্তারা জানালেন, সরকারি ভাবে ধান, চাল সংগ্রহ শুরু হলে ধানের দাম বাড়বে। 
বিস্তির্ণ মাঠজুড়ে সোনালী ধানের এমন চিত্র এখন চোখে পড়বে বগুড়া জেলার বিভিন্ন স্থানে। বোরো ধানের বাম্পার ফলনে মাঠে মাঠে এখন কৃষকদের ব্যস্ততা, চলছে ধান কাটার প্রস্তুতি। 
তবে ধানের দাম আশানুরূপ না হওয়ায় হতাশ কৃষকরা। প্রতি মণ নতুন ধানের দাম ৫৫০ থেকে ৬০০ টাকা। যা উৎপাদন খরচের চেয়ে অনেক কম। এ অবস্থায় সোনালি ফসল মাঠ থেকে উঠানে উঠতে শুরু করলেও হাসি নেই কৃষকের মুখে।
জেলা খাদ্য বিভাগ বলছে, সরকারি ভাবে ধান, চাল সংগ্রহ শুরু হলে কৃষকেরা সঠিক মূল্য পাবে।
কৃষকরা ন্যায্য মূল্য পেলে উৎপাদনের ধারা বজায় থাকবে বলে জানায় স্থানীয় কৃষি বিভাগ। 
ধানের ন্যায্য মূল্য নিশ্চিত করতে সরকার দ্রুত পদক্ষেপ নেবে এমনটাই প্রত্যাশা এ জেলার কৃষকদের।


 

এই বিভাগের আরো খবর

ত্রিশালে কাজী নজরুলের জন্মজয়ন্তী উৎসব শুরু কাল 

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি: জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের জন্মবার্ষিকী উদযাপনে তাঁর বাল্য স্মৃতিবিজড়িত ময়মনসিংহের ত্রিশালে এবারো আয়োজন করা হয়েছে...

সাতক্ষীরায় প্রাথমিকের প্রশ্নপত্র ফাঁস চক্রের ৩৬ সদস্য আটক

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি: সাতক্ষীরার কলারোয়া থেকে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ফাঁস চক্রের ৩৬ সদস্যকে আটক...

রাঙ্গামাটিতে লিচুর বাম্পার ফলন হলেও হাসি নেই চাষিদের

রাঙ্গামাটি প্রতিনিধি: রাঙ্গামাটিতে লিচুর বাম্পার ফলন হলেও হাসি নেই চাষিদের মুখে। তারা বলছেন, প্রচণ্ড তাপ আর অনাবৃষ্টির কারণে নষ্ট হয়ে...

পাবনা ও সিরাজগঞ্জে বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধ নির্মাণে বিশেষ পদ্ধতি

পাবনা প্রতিনিধি: আবাদি জমি নষ্ট না করে বিশেষ পদ্ধতিতে বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধ নির্মাণ করা হচ্ছে পাবনা ও সিরাজগঞ্জে। নদীর পলি মাটি, ইট-বালু আর...

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের জামদানী পল্লীতে ব্যস্ততা, বেড়েছে বেচাকেনা

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি: ঈদকে সামনে রেখে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের জামদানী পল্লীতে জামদানী শাড়ী তৈরির ধুম পড়েছে। ঈদের আগে রাত দিন কাজ করছেন...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is