ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৪ আশ্বিন ১৪২৬

2019-09-19

, ১৯ মহররম ১৪৪১

প্রতি মণ ধানে লোকসান ৩০০ টাকা, সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ধান কেনার দাবি  

প্রকাশিত: ১০:০৪ , ১৮ মে ২০১৯ আপডেট: ১১:১৬ , ১৮ মে ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক: প্রতি মণ ধানে প্রায় ৩০০ টাকা লোকসান গুণতে হচ্ছে কৃষককে। বোরো’র ভরা মওসুমে একদিকে ধান কাটতে শ্রমিকের সংকট ও উচ্চ মজুরি অন্যদিকে বাজারে দাম কম, এমন পরিস্থিতিতে বেশি সংকটে পড়েছেন বর্গা চাষীরা। ধানের ন্যায্য মূল্যের দাবিতে বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভ হচ্ছে। সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে সরকারি ভাবে ধান কেনার দাবি করছেন তারা।
প্রত্যাশার সোনালী ধান কেটে ঘরে তুলেছেন দিনাজপুরের কৃষক সহিরউদ্দিন। চলতি মৌসুমে তিনি সাড়ে দশ বিঘা জমিতে বোরো ধান চাষ করেন, তাতে ফলনও হয়েছে ভাল। কিন্তু নতুন ধান বাজারে নিয়েও স্বস্তি নেই তার।
কৃষকের প্রতি বিঘা জমিতে ধান ফলাতে বীজ, সার, সেচ, নিরানী, কাটা-মারা ও বাজারে নিয়ে আসা পর্যন্ত খরচের লম্বা তালিকা। জমি ভেদে বিঘা প্রতি উৎপাদন ব্যয় সাড়ে ১১ হাজার থেকে সাড়ে ১৪ হাজার টাকা। তাতে মন প্রতি ধানের উৎপাদন খরচ হয় গড়ে ৬শ টাকা। কিন্তু বর্তমানে বাজারে প্রতি মণ ধান বিক্রি হচ্ছে ৫শ’ টাকায়।
শ্রমিকের সংকট, উচ্চ মজুরী আবার বাজারে ধানের দাম কম, এমন অবস্থায় জমি থেকে নতুন ধান তুলতেও ভয় পাচ্ছে কৃষক।
নিজের জমির পাকা ধানে আগুন লাগিয়ে এক কৃষক প্রতীকী প্রতিবাদ করেছেন। অনেকে ধান রাস্তায় ফেলে প্রতিবাদ করছেন।
চলতি মৌসুমে দেশ জুড়ে ১৯৬ লাখ মেট্রিক টন বোরো ধান উৎপাদনের লক্ষমাত্রা কৃষি সম্প্রাসরণ অধিদপ্তরের। আর এরই মধ্যে এখন পর্যন্ত ১৩৫ লাখ মেট্রিক টন পাকা ধান কাটা হয়েছে।

এই বিভাগের আরো খবর

বিভিন্ন সংস্থা ও ব্যক্তিকে প্রধানমন্ত্রীর অনুদান প্রদান

নিজস্ব প্রতিবেদক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিভিন্ন সংস্থা, মুক্তিযোদ্ধা, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব ও ক্রীড়াবিদকে ১৩ কোটি ৬৫ লাখ টাকার অনুদান...

মাগুরায় জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে লাউ চাষ

মাগুরা প্রতিনিধি: মাগুরার বারইপাড়া, নড়িহাটি, শ্রীপুরসহ বিভিন্ন এলাকায় কৃষকরা বাণিজ্যিকভাবে লাউ চাষ করছেন। জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে এ লাউ চাষ।...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is