মেহেরপুরে চাল কেনায় অনিয়মের অভিযোগ

প্রকাশিত: ০২:০৩, ১২ জুন ২০১৯

আপডেট: ০২:০৩, ১২ জুন ২০১৯

মেহেরপুর প্রতিনিধি: মেহেরপুরে সরকারীভাবে চাল কেনায় অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। চালকল মালিকরা নিজেদের মিল বন্ধ রেখে জেলার বাইরে থেকে চাল কিনে সরকারী গুদামে সরবরাহ করছে।  এতে ধানের ন্যায্য দাম থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন জেলার কৃষকরা।

অন্যদিকে স্থানীয় প্রভাবশালী সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে চাল বিক্রিতে কমিশন দাবির অভিযোগ তুলেছেন মিল মালিকরা।

সচল মিল, ধান সিদ্ধ করার বয়লার ও গুদামঘর থাকলেই কেবল চালকল মালিকরা চাল বিক্রির জন্য খাদ্য অধিদপ্তরের সাথে চুক্তিবদ্ধ হতে পারেন। সরকারীভাবে চাল সংগ্রহ শুরুর পর কৃষকরা আশা করেছিলেন ভাল দামে ধান বিক্রির সুযোগ পাবেন তারা। কিন্তু  মেহেরপুরের  গাংনীর চুক্তিবদ্ধ ১৪ চালকল মালিকের অনেকেরই মিল বন্ধ। তারা জেলার বাইরে থেকে চাল কিনে সরকারী খাদ্যগুদামে সরবরাহ করছেন। এতে কৃষকরা যেমন ধান বিক্রি করতে পারছেন না, তেমনি বেকার হয়ে পড়েছেন মিলের শ্রমিকরাও।

চাল সংগ্রহ নিয়ে মেহেরপুরে প্রভাবশালীদের তিনটি সিন্ডিকেট তৎপর। এদের সাথে যোগসাজশের অভিযোগ রয়েছে খাদ্য অধিদপ্তরের কর্মকর্তাদেরও।

গত ২২ মে চাল সংগ্রহের  প্রথম দিনে খাদ্য গুদামে এদের দুই পক্ষ হাতাহাতিতে জড়িয়ে পড়ে। সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে প্রতি কেজি চালে ৬ টাকা কমিশন দাবির অভিযোগ মিল মালিকদের।

এদিকে, সিন্ডিকেট তৈরির জন্য উপজেলা চেয়ারম্যান এম এ খালেক দায় চাপাচ্ছেন স্থানীয় সাংসদের ওপর। তবে পাল্টা অভিযোগ তুলে সাংসদ বললেন, কৃষকদের স্বার্থ রক্ষায় কোনভাবেই বাইরের জেলার চাল ঢুকতে দেওয়া হবেনা।

তবে চাল সংগ্রহে কোনও অনিয়ম হচ্ছেনা বলে দাবি খাদ্য অধিপ্তরের

গাংনী  উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিসার খলিলুর রহমান।

এ বছর গাংনী উপজেলায় ৩৬ টাকা কেজি দরে ৫৭৭ মেট্রিকটন চাল সংগ্রহ করবে খাদ্য অধিদপ্তর।

 

এই বিভাগের আরো খবর

উত্তরাঞ্চলে  জেঁকে বসেছে শীত

নিজস্ব সংবাদদাতা: দেশের উত্তরাঞ্চলে...

বিস্তারিত
পটুয়াখালীতে ২’শ মন জাটকাসহ ১২ জন আটক

পটুয়াখালী সংবাদদাতা: পটুয়াখালীর...

বিস্তারিত
খুলনায় আরো এক পাটকল শ্রমিকের মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক: খুলনায় সোহরাব (৫৫)...

বিস্তারিত
সোসিয়াদাদের মাঠে বার্সেলোনার বিপর্যয়

ক্রীড়া ডেস্ক: স্প্যানিশ লিগে পয়েন্ট...

বিস্তারিত
যুবলীগের প্রশংসা করলেন অর্থমন্ত্রী

কুমিল্লা সংবাদদাতা: দেশকে এগিয়ে নিতে...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *