ঢাকা, বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৩ আশ্বিন ১৪২৬

2019-09-18

, ১৮ মহররম ১৪৪১

লোকজ সংস্কৃতির সিংহভাগ জুড়ে সাম্পান আর মাঝিরা

প্রকাশিত: ০৯:১৮ , ০৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯ আপডেট: ১২:০০ , ০৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক: চট্টগ্রাম অঞ্চলের লোকজ সংস্কৃতি, কৃষ্টি, গীতি নাট্যের সিংহভাগ জুড়ে আছে কর্ণফুলী নদীর সাম্পান আর তার মাঝিরা। রচিত হয়েছে অসংখ্য গান, নাটক, সিনেমা। যেখানে মানুষের জীবন কাহিনী ফুটে উঠেছে। সাম্পান ভিত্তিক নাটক, গানের কদরও অনেক। এসব এই জনপদের সংস্কৃতিকে সমৃদ্ধ করেছে। 

চট্টগ্রামের লোক সাংস্কৃতিতে উপকুল আর দ্বীপ অঞ্চলের মানুষের সুখ-দুঃখ, হাসি-কান্না, বিরহ-মিলনের ঘটনা ছাড়াও বড় অংশ জুড়ে আছে সাগর, নদী, খাল, সাম্পান ও তার মাঝির কথা। এই জনপদের সাংস্কৃতিক চর্চাকে সমৃদ্ধ করেছে সাম্পান আর মাঝি।

১৯৩২ সালে কলকাতার স্বনামখ্যাত রেকর্ডিং প্রতিষ্ঠান এইচ.এম.ভি প্রথম চট্টগ্রামের আঞ্চলিক গানের গ্রামোফোন রেকর্ড বের করে। প্রথম প্রচার ও সংরক্ষণ হয় সাম্পান আর মাঝিদের জীবন কথা । ১৯৭৬ সালে দেশের স্বনামখ্যাত চিত্র পরিচালক সত্য সাহা নির্মাণ করেন ‘সাম্পান ওয়ালা’ নামে জনপ্রিয় পূর্ণদীর্ঘ চলচ্চিত্র।  

১৯৭০-এর দশক চট্টগ্রামের আঞ্চলিক গানের স্বর্ণ যুগ। প্রায়ত শেফালী ঘোষ, কল্যাণী ঘোষ, শ্যাম সুন্দর, সনজিত আচার্যসহ অনেকে সাম্পান ও মঝিদের জীবন কেন্দ্রীক আঞ্চলিক গান ও পালা গানের প্রসার ঘটান। নতুন প্রজন্মের অনেক শিল্পী সেসব গানের চর্চা ধরে রেখেছেন। 

সাম্পান মাঝিরা নদী বা সাগরেরর বুকে ক্লান্তি দূর করতে গলা ছেড়ে গাইতো বলে সেসবকে ‘হালদাফাডা গান’ও বলে। এসব লোক সংস্কৃতির কথা ও সুর অনেক কবি-সাহিত্যিকের প্রেরণার উৎস হয়েছে।

১৯৩০ সালে কীংবদন্তী বাংলা কবি কাজী নজরুল ইসলাম কর্ণফুলীর সাম্পানে চড়ে মুগ্ধ হন, রচনা করেন গান। স্থানীয় অনেক কবি-সাহিত্যিকের রচিত সাহিত্যও অম্লান হয়ে আছে। তবে সময়ে সময়ে পরিবর্তনের হাওয়ায় উদ্বেগ আছে, আছে ঐতিহ্য ধরে রাখারও চেষ্টা। 

সাম্পান এই জনপদের জীবন-জীবিকার যেমন প্রধান উৎস, তেমনি সংস্কৃতিরও প্রাণ ভোমরা। শেকড়ের এই ঐতিহ্যকে প্রজন্মান্তরে বহমান রাখার আকুতি আছে সচেতনদের মাঝে। 

এই বিভাগের আরো খবর

চট্টগ্রাম অঞ্চলে সাম্পানের মাঝি হওয়াও ছিল বড় পেশা

নিজস্ব প্রতিবেদক: চট্টগ্রাম অঞ্চলের জনপদগুলোতে কৃষিকাজ বা মাছ ধরার পাশাপাশি বড় পেশা ছিল সাম্পানের মাঝি হওয়া। তাই একসময় বিপুল জনগোষ্ঠীর...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is