ফকিরাপুলে ক্লাবে অবৈধ ক্যাসিনো, র‌্যাবের অভিযানে আটক ১৪২

প্রকাশিত: ০৬:৫৬, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯

আপডেট: ১২:০২, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজধানীর মতিঝিলের ফকিরাপুল এলাকার ‘ইয়াং ম্যান্স ক্লাব’ নামের একটি ক্যাসিনোতে (জুয়ার আসর)  অভিযান চালিয়ে ১৪২ জনকে আটক করেছে র‌্যাব। এখানে নিয়মিত জুয়ার আসর বসত বলে জানায় র‌্যাব।

আজ (বুধবার) সন্ধ্যায় ফকিরাপুলে খালেদ মাহমুদ ভূঁইয়ার মালিকানাধীন ইয়ংমেনস ক্লাবে অভিযান চালান র‌্যাব সদর দপ্তরের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. সারওয়ার আলম ও র‌্যাব-৩ এর একটি দল। র‌্যাবের অভিযানে ইয়ংমেনস ক্লাব থেকে ১৪২ জনকে আটক করা হয়েছে। আটক এসব ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তাঁরা সেখানে অবৈধ জুয়া ও মদ পানের আসর জমিয়েছিলেন।

সারওয়ার আলম জানান, র‌্যাবের কাছে অভিযোগ আছে, এই ক্লাবে গত আট মাস ধরে অবৈধ আসর বসত। অভিযানের সময় তাঁরা দেখতে পান, ক্লাবের নিচ তলায় যন্ত্রের মাধ্যমে জুয়া খেলা (ক্যাসিনো) চলছে। এ ছাড়া জুয়া খেলার ফাঁকে ফাঁকে মদ পান হচ্ছে।

সারওয়ার আলম জানান, যারা এই ক্লাবে এসেছে তারা বিভিন্ন বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত ও ব্যবসার সঙ্গে জড়িত। আটক ব্যক্তিদের মদ পানের লাইসেন্স নেই। তিনি জানান, ইয়ংমেনস ক্লাবেরও মদ বিক্রির লাইসেন্স নেই।
সারওয়ার আলম আরও বলেন, এখন পর্যন্ত জুয়া খেলায় ব্যবহার হওয়া ২০ লাখ ৪৪ হাজার টাকা জব্দ করা হয়েছে। আটক ব্যক্তিরা তাদের দোষ স্বীকার করেছেন।  এর মধ্যে ১৩০ জনকে ৬ মাসের কারাদণ্ড ও দুই নারীকে ক্ষমা করা হয়েছে। এর মধ্যে ৩১ জনকে এক বছর, যার মধ্যে ১৬ জন কর্মচারী। আর বাকীদের ৬ মাস করে বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

র‌্যাব সূত্র জানায়, দোতলা বিশিষ্ট ওই ক্লাবের নিচ তলায় ছিল ক্যাসিনো। আর পাশের একটি কক্ষে ছিল ম্যানুয়াল পদ্ধতিতে জুয়া খেলার ব্যবস্থা। এই দুই জায়গা থেকেই ওই ১৪২ জনকে আটক করা হয়।

এই বিভাগের আরো খবর

খুলনায় বন্দুকযুদ্ধে ৪ জলদস্যু নিহত

ডেস্ক প্রতিবেদক: সুন্দরবনে র‌্যাব-৬...

বিস্তারিত
কুমিল্লায় ব্যবসায়ী হত্যা; ৯ জনের ফাঁসি

কুমিল্লা প্রতিনিধি: কুমিল্লার...

বিস্তারিত
নাইকো মামলায় খালেদার বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন

নিজস্ব প্রতিবেদক: নাইকো দুর্নীতি...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *