বিএনপির অনেক নেতাই দল ছেড়ে যেতে চায়: তথ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত: ০৫:২০, ১২ নভেম্বর ২০১৯

আপডেট: ১০:৩৭, ১২ নভেম্বর ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিএনপির অনেক নেতাই দল ছেড়ে যাওয়ার জন্য বহুদিন ধরেই চিন্তা-ভাবনা করছেন এবং আওয়ামী লীগের বিভিন্ন পর্যায়ে যোগাযোগ করছেন বলে জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

আজ (মঙ্গলবার)সচিবালয়ে তিনি বিএনপি নেতা গয়েশ্বর চন্দ্র রায়ের বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় একথা বলেন।

হাছান মাহমুদ বলেন, ‘গয়েশ্বর  কালকে বলেছেন ‘বিএনপি হচ্ছে একটি বটগাছ। এই বটগাছের নিচে মানুষ আসবে এবং বিশ্রাম নিয়ে চলে যাবে’।

এ প্রসঙ্গে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘তাদের দল থেকে যে সম্প্রতি বেশ কয়েকজন সিনিয়র নেতা দলত্যাগ করে চলে গেছেন সেই প্রসঙ্গেই তিনি একথা বলেছেন। এখন আমার প্রশ্ন হচ্ছে তিনি বিএনপির বটগাছ থেকে চলে যাবেন, সেই প্রশ্ন অনেকেই করেছে।’

এ সময় হাছান মাহমুদ আরও বলেন, বিএনপি থেকে যেভাবে তাদের সিনিয়র নেতারা দলত্যাগ করে চলে যাচ্ছেন, এই তালিকায় আরো অনেকে আছেন। সেগুলো ভবিষ্যতে বিএনপি দেখতে পাবে। রাজনীতি হচ্ছে মানুষের জন্য, জনগণের কল্যাণের জন্য। কিন্তু তাদের রাজনীতি গত ১১ বছরে মানুষের কল্যাণে আবর্তিত হয়নি। তাদের রাজনীতি সবসময় আবর্তিত হয়েছে তত্ত্বাবধায়ক সরকার, নির্বাচন কমিশন এবং খালেদা জিয়া, তারেক জিয়ার মামলা এবং খালেদা জিয়ার মুক্তি নিয়ে।

মিয়ানমারের বিরুদ্ধে ইন্টারন্যাশনাল কোর্ট অব জাস্টিসে মামলা প্রসঙ্গে তথ্যমন্ত্রী বলেন, গাম্বিয়া যে মামলাটি করেছে সেটি ওআইসির সিদ্ধান্তে করেছে। এই মামলার বিষয়টি ওআইসিভুক্ত ৫৬টি দেশের রেজুলেশনে সংযুক্ত রয়েছে।

‘যখন মিয়ানমার থেকে রোহিঙ্গাদের বিতাড়ন করা হচ্ছিলো, তাদের উপর নির্যাতন চালানো শুরু হয়েছিল, মানবতার বিরুদ্ধে যে অপরাধ সংঘটিত হওয়া শুরু হয়েছিল তখন ওআইসি মিটিং ডাকেনি। এরপরে বাংলাদেশের উদ্যোগের পর মিটিং ডাকে।’

মামলার পরিপ্রেক্ষিতে প্রকৃতপক্ষে মিয়ানমারের উপর আন্তর্জাতিক চাপ আরো বাড়বে এবং দ্রুত রোহিঙ্গাদের তাদের দেশে ফিরিয়ে নিয়ে যাবে বলে আশা করেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ।

এই বিভাগের আরো খবর

মরা গাঙে জোয়ার আর আসে না: কাদের 

নিজস্ব প্রতিবেদক: আওয়ামী লীগের...

বিস্তারিত
ভিপি নুরকে পদত্যাগের আহ্বান রাব্বানীর

নিজস্ব প্রতিবেদক: ডাকসুর ভিপি নুরুল...

বিস্তারিত
আওয়ামী লীগে খারাপ লোকের প্রয়োজন নেই : কাদের

অনলাইণ ডেস্ক : সুন্দর ছবি, ব্যানারে ও...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *