রোহিঙ্গা গণহত্যা: মিয়ানমারের সাজা চায় গাম্বিয়া

প্রকাশিত: ০৬:৩৫, ১২ ডিসেম্বর ২০১৯

আপডেট: ১১:৪৫, ১২ ডিসেম্বর ২০১৯

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : গাম্বিয়া চেয়েছে মিয়ানমারের সাজা। আর মিয়ানমার চেয়েছে গাম্বিয়ার মামলা খারিজ। দুই দেশের এই দুই আবেদনের মধ্যে দিয়ে রোহিঙ্গা গণহত্যা নিয়ে আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে মামলার যুক্তিতর্ক শেষ হয়েছে তৃতীয় দিনে। আদালত কবে তাদের সিদ্ধান্ত দেবে তা পরে জানাবে বলে কার্যক্রম শেষ করেছে।

নেদারল্যান্ডসের দি হেগে অবস্থিত জাতিসংঘের আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে বৃহস্পতিবার স্থানীয় সময় সকালে, শেষ দিনের শুনানিতে রোহিঙ্গা গণহত্যার সপক্ষে যুক্তি তুলে ধরেন গাম্বিয়ার তিন আইনজীবী। বিশ্বজুড়ে আলোচিত রোহিঙ্গা হত্যার রোমহর্ষক কিছু ছবি আদালতে দেখিয়ে গাম্বিয়ার আইনজীবীরা বলেন, মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে প্রকাশিত এসব ছবিই প্রমাণ করে রাখাইনে কি পরিমাণ ধ্বংসযজ্ঞ চালানো হয়েছিল। আরাকান স্যালভেশন আর্মি- আর্সার দোহায় দিয়ে অভিযান চালালেও মিয়ানমার সেনাবাহিনীর হত্যাযজ্ঞ থেকে সাধারণ মানুষও রেহায় পায়নি। 

পরে গাম্বিয়ার পক্ষে দেশটির আইনমন্ত্রী আবু বাকার মারি তাম্বাডৌ সংকটের সমাধানে ছয় দফা দাবি তুলে ধরে ছয় দফা দাবি উত্থাপন করেন। রাখাইনে সেনাবাহিনীকে যাবতীয় কর্মকান্ড পরিচালনা থেকে বিরত রাখা, জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের রাখাইনে প্রবেশের অনুমতি প্রদান ও সত্যতা অনুসন্ধানের সুযোগ দেয়ার দাবিও জানান।

স্থানীয় সময় বিকেলে রোহিঙ্গা গণহত্যার বিপরীতে নিজেদের যুক্তি উপস্থাপন করেন মিয়ানমারের আইনজীবীরা। বলেন, আন্তর্জাতিক কনভেশন অনুযায়ী গণহত্যার কাতারে পরে না মিয়ানমার সেনাবাহিনীর কার্যক্রম। গাম্বিয়ার অনুসন্ধান্ত বিভ্রান্তকার বলেও দাবি করেন তারা। 

পরে, সমাপনী বক্তব্যে মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলর অং সান সুচি, রাখাইনে নিরাপদ পরিবেশ সৃষ্টির কথা উল্লেখ করে গাম্বিয়ার করা মামলা খারিজের দাবি জানান আদালতের কাছে।

দুই পক্ষের শুনানি শেষে পরবর্তিতে গাম্বিয়া ও মিয়ানমারের সাথে আলোচনার সাপেক্ষে নিজেদের সিদ্ধান্ত জানানোর কথা উল্লেখ করে কার্যক্রম শেষ করেন জাতিসংঘের বিচার আদালতের প্রেসিডেন্ট।

এদিন ‘ইন্টারন্যাশন্যাল কোর্ট অব জাস্টিস’ (আইসিজে)-এ যুক্তি-তর্ক অনুষ্ঠিত হয়। এর আগে শুনানির প্রথম দিন বাদী পক্ষের বক্তব্য শোনা হয়। দ্বিতীয় দিন মিয়ানমারের পক্ষে জবাব দেন দেশটির স্টেট কাউন্সেলর অং সান সু চি।

এই বিভাগের আরো খবর

চীনে করোনা ভাইরাসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৮০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:  করোনা ভাইরাস...

বিস্তারিত
চীনের উহানে আতঙ্কে বাংলাদেশিরা

অনলাইন ডেস্ক: চীনে উহানে অবস্থান করছে...

বিস্তারিত
করোনা ভাইরাস ছড়ানোর কারণ সাপ!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: চীন-সহ বিশ্বজুড়ে...

বিস্তারিত
মাত্র ১৭ বছর বয়সে অদ্ভুত এক গ্রহ আবিষ্কার 

অনলাইন ডেস্ক: যদি দেখা যায়, কোনো দিন এক...

বিস্তারিত
ভাইরাসের চিকিৎসা দিতে গিয়ে ডাক্তারের মৃত্যু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: চীনের উহান শহরে...

বিস্তারিত
আরো যেসব দেশে করোনা ভাইরাস

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: চীনের প্রানঘাতি...

বিস্তারিত
চীন ভয়াবহ পরিস্থিতির মুখোমুখি: শি জিনপিং

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: প্রাণঘাতি করোনা...

বিস্তারিত
ব্রাজিলে ঝড় ও বৃষ্টিতে ৩০ জনের মৃত্যু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ব্রাজিলে গত দুই...

বিস্তারিত
চীনে ভাইরাসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৫৬

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: চীনে দ্রুত ছড়িয়ে...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *