করোনা প্রতিরোধে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের জন্য নির্দেশনা

প্রকাশিত: ০৮:৫৪, ১০ মার্চ ২০২০

আপডেট: ১১:০১, ১০ মার্চ ২০২০

ডেস্ক প্রতিবেদন: প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে জরুরি নির্দেশনা দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর (মাউশি)। মঙ্গলবার মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক সৈয়দ মো. গোলাম ফারুক স্বাক্ষরিত চিঠিতে এ নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

শিক্ষা-প্রতিষ্ঠান এবং অধিদপ্তরের অধীনে সব অফিসকে নির্দেশনা দিয়ে বলা হয়েছে, সরকার এরই মধ্যে করোনা সংক্রমণ রোধ ও আক্রান্ত রোগীর চিকিৎসায় প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিয়েছে। এ ভাইরাস সংক্রমণরোধে সবার সতর্কতা ও সচেতনতা প্রয়োজন। মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের অধীন সব অফিস ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সংশ্লিষ্ট সবাইকে এ পরিস্থিতি মোকাবিলায় সচেষ্ট থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়।

নির্দেশনা ও পরামর্শ: 

২০১৯ এন-করোনা ভাইরাস যেভাবে ছড়ায়:
() মানুষ থেকে মানুষে সংক্রমিত হচ্ছে।
() করোনা ভাইরাস মানুষের ফুসফুসে সংক্রমণ ঘটায় শ্বাসতন্ত্রের মাধ্যমে 
() আক্রান্ত ব্যক্তির হাঁচি, কাশি, কফ, থুথু অথবা সংস্পর্শে আসলে একজন থেকে আরেকজনে ছড়ায়।

লক্ষণসমূহ:
() ভাইরাস শরীরে ঢোকার পর সংক্রমণের লক্ষণ দেখা দিতে প্রায় ২-১৪ দিন লাগে।
() বেশিরভাগ ক্ষেত্রে প্রথম লক্ষণ জ্বর। এছাড়া শুকনো কাশি বা গলা ব্যথা হতে পারে।
() শ্বাসকষ্ট বা নিউমোনিয়া দেখা দিতে পারে।
() অন্যান্য অসুস্থতা (ডায়াবেটিস বা উচ্চ রক্তচাপ বা শ্বাসকষ্ট বা হৃদরোগ বা কিডনি সমস্যা বা ক্যান্সার) থাকলে অরগ্যান ফেইলিওর বা দেহের বিভিন্ন প্রত্যঙ্গ বিকল হতে পারে।
 
প্রতিকার: যেহেতু এই ভাইরাসটি নতুন, তাই এর কোনো টিকা বা ভ্যাকসিন এখনো নেই। চিকিৎসা লক্ষণভিত্তিক।
 
প্রতিরোধে করণীয় (ব্যক্তিগত সচেতনতা)
() ঘন ঘন সাবান ও পানি দিয়ে হাত ধুতে হবে (অন্তত ২০ সেকেন্ড)।
() অপরিস্কার হাতে চোখ, নাক ও মুখ স্পর্শ করা যাবে না।
() ইতোমধ্যে আক্রান্ত এমন ব্যক্তির সংস্পর্শ এড়িয়ে চলা।   
() হাঁচি বা কাশির সময় বাহু বা টিস্যু বা কাপড় দিয়ে নাক-মুখ ঢেকে রাখতে হবে।
() অসুস্থ পশু বা পাখির সংস্পর্শ পরিহার করতে হবে।
() মাছ-মাংস ভালোভাবে রান্না করে খেতে হবে।
() অসুস্থ হলে ঘরে থাকুন, বাইরে যাওয়া অত্যাবশ্যক হলে নাক-মুখ ঢাকার জন্য মাস্ক ব্যবহার করতে হবে।
() জরুরি প্রয়োজন ব্যতীত বিদেশ ভ্রমণ করা থেকে বিরত থাকুন এবং প্রয়োজন ব্যতীয় এ সময়ে বাংলাদেশ ভ্রমণে নিরুৎসাহিত করতে হবে।
() প্রবাসী আত্মীয়-স্বজনকে জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বাংলাদেশ ভ্রমণে নিরুৎসাহিত করতে হবে।
() প্রয়োজন ছাড়া যেকোনো জনসমাগম এড়িয়ে চলতে হবে।
() অত্যাবশ্যকীয় ভ্রমণে সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে।

সন্দেহভাজন রোগের ক্ষেত্রে করণীয়
() প্রবাসী আত্মীয় জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বাংলাদেশ ভ্রমণে নিরুৎসাহিত করা।
() অসুস্থ রোগীকে ঘরে থাকতে বলুন।
() মারাত্মক অসুস্থ রোগীকে নিকটস্থ সদর হাসপাতালে যেতে বলুন।
() রোগীকে নাক-মুখ ঢাকার জন্য মাস্ক ব্যবহার করতে বলুন।
() আইইডিসিআরের করোনা কন্ট্রোল রুমে (০১৭০০-৭০৫৭৩৭) অথবা হটলাইন (০১৯৩৭১১০০১১, ০১৯৩৭০০০০১১, ০১৯২৭৭১১৭৮৪ ও ০১৯২৭৭১১৭৮৫) যোগাযোগ করুন।  

এই বিভাগের আরো খবর

লকডাউন শিথিল করা হয়েছে যুক্তরাজ্যে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: বৈশ্বিক মহামারি...

বিস্তারিত
মৃত্যুর তালিকায় পাঁচে মেক্সিকো

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: করোনাভাইরাসের...

বিস্তারিত
সৌদিতে আক্রান্ত ২ লাখ ছাড়িয়েছে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: বিশ্বব্যাপী...

বিস্তারিত
বিশ্বে একদিনে শনাক্ত ২ লাখ ৯ হাজার ২৮ জন 

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: করোনাভাইরাসে...

বিস্তারিত
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় এলাকা লকডাউন

চট্টগ্রাম সংবাদদাতা : করোনা ভাইরাসের...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *