ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৬ জানুয়ারী ২০১৮, ৩ মাঘ ১৪২৪, ২৮ রবিউস সানি ১৪৩৯
শিরোনামঃ
৩০ দফা ফিজিক্যাল অ্যারেঞ্জমেন্টে একমত হয়েছে বাংলাদেশ -মিয়ানমার চট্টগ্রামে প্রণব মুখার্জি বাল্যবিয়ে আজও দেশের বড় সামাজিক সমস্যা বিএনপির মনোনয়ন পেলেন তাবিথ আউয়াল শাহজালালে যাত্রীর অন্তর্বাস থেকে ৪৩টি স্বর্ণের বার আটক শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী নৌরুটে ফেরি চলাচল শুরু বিগ বস ১১’ জয়ী শিল্পা শিন্ডে জাতীয় সংসদ ভবনের নকশা নিয়ে আজো চলছে গবেষণা আলিয়া-রণবীরকে দেখা যাবে জোয়ারের ছবিতে নিরাপত্তার জন্য সংসদ ভবন পরিদর্শনের সুযোগ কম সাধারণ মানুষের ৫ দিনের সফরে ঢাকায় প্রণব মুখার্জী, প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাত আজ বাংলাদেশ-মিয়ানমার জয়েন্ট ওয়ার্কিং গ্রুপের বৈঠক শুরু ৪ ঘন্টা বন্ধ থাকার পর শাহজালাল বিমানবন্দরে বিমান উড্ডয়ন-অবতরণ শুরু প্রথম ম্যাচে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টস জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত বাংলাদেশের

সাহিত্যে সুফিয়া কামালের সৃজনশীলতা অবিস্মরণীয়: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত: ০৬:২২ , ১৯ জুন ২০১৭ আপডেট: ০৬:২২ , ১৯ জুন ২০১৭

নিজস্ব প্রতিবেদক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, সাহিত্যে বেগম সুফিয়া কামালের সৃজনশীলতা ছিল অবিস্মরণীয়। শিশুতোষ রচনা ছাড়াও দেশ, প্রকৃতি, গণতন্ত্র, সমাজ সংস্কার এবং নারীমুক্তিসহ বিভিন্ন বিষয়ে তাঁর লেখনী আজও পাঠককে আলোড়িত ও অনুপ্রাণিত করে।-- খবর বাসস'র।

আগামীকাল ২০ জুলাই (মঙ্গলবার) বেগম সুফিয়া কামালের ১০৬তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আজ সোমবার দেয়া এক বাণীতে প্রধানমন্ত্রী এ কথা বলেন।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘সুফিয়া কামাল ছিলেন একদিকে আবহমান বাঙালি নারীর প্রতিকৃতি, মমতাময়ী মা, অন্যদিকে বাংলার প্রতিটি আন্দোলন সংগ্রামে ছিল তাঁর আপোষহীন এবং দৃপ্ত পদচারণা। ’

তিনি বলেন, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে পচাঁত্তরের পনেরই আগস্টে নিমর্মভাবে হত্যা করে যখন এ দেশের ইতিহাস বিবৃতির পালা শুরু হয়, তখনও সুফিয়া কামালের সোচ্চার ভূমিকা বাংলাদেশে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের গণতান্ত্রিক শক্তিকে নতুন প্রেরণা যুগিয়েছিল।

বাণীতে শেখ হাসিনা বলেন, নারী জাগরণের অগ্রদূত বেগম রোকেয়ার চিন্তাধারা কবি সুফিয়া কামালের জীবনে সুদূরপ্রসারী প্রভাব ফেলেছিল। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম মহিলা হোস্টেলকে ‘রোকেয়া হল’ নামকরণের দাবি জানান। ১৯৬১ সালে পাকিস্তান সরকার রবীন্দ্রসঙ্গীত নিষিদ্ধ করলে এর প্রতিবাদে আন্দোলন করেন। শিশু সংগঠন কচিকাঁচার মেলা’র তিনি প্রতিষ্ঠাতা।

তিনি বলেন, বায়ান্ন’র ভাষা আন্দোলন, ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থান, একাত্তরের অসহযোগ আন্দোলন ও মুক্তিযুদ্ধ এবং স্বাধীন বাংলাদেশে বিভিন্ন গণতান্ত্রিক সংগ্রামসহ শিক্ষা ও সাংস্কৃতিক আন্দোলনে তাঁর প্রত্যক্ষ উপস্থিতি তাঁকে জনগণের ‘জননী সাহসিকা’ উপাধিতে অভিষিক্ত করেছে।

বাণীতে প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশের প্রগতিশীল, গণতান্ত্রিক এবং নারীমুক্তি আন্দোলনের অন্যতম অগ্রদূত বেগম সুফিয়া কামালের ১০৬ তম জন্মদিন উপলক্ষে তাঁর স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানান এবং তার আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন।

এই বিভাগের আরো খবর

আট ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষা বাতিল

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ রাষ্ট্রীয় আট ব্যাংকের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা পদে নিয়োগ পরীক্ষা বাতিলের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আজ মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে...

শাহজালালে যাত্রীর অন্তর্বাস থেকে ৪৩টি স্বর্ণের বার আটক

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ  সোমবার মধ্যরাতে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে শুল্ক গোয়েন্দারা অভিযান চালিয়ে এক যাত্রীর অন্তর্বাস থেকে ৪৩টি...

নির্বাচনকালীন সরকার নিয়ে দ্বিধাদ্বন্দ্বে বিএনপিঃ ওবায়দুল কাদের

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বিএনপি নির্বাচনকালীন সরকার নিয়ে দ্বিধাদ্বন্দ্বের রয়েছে বলে মনে করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি...

নিজস্ব অর্থায়নে হবে ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক চার লেন: অর্থমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক: পদ্মা সেতুর মতো ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক চার লেন প্রকল্প বাস্তবায়নও সরকার নিজস্ব অর্থে করবে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is