দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ: জাতিসংঘ

প্রকাশিত: ১১:৪৭, ০১ এপ্রিল ২০২০

আপডেট: ১১:৪৭, ০১ এপ্রিল ২০২০

অনলাইন ডেস্ক:  প্রাণঘাতী নভেল করোনাভাইরাস মহামারি দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর বিশ্বের জন্য সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ বলে মন্তব্য করেছেন জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্তনিও গুতেরেস। তিনি সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, এই মহামারি কঠিন অর্থনৈতিক মন্দা এনে দিতে পারে, যার সমকক্ষ সম্ভবত বিগত অতীতে দেখা যায়নি।

‘আর্থ-সামাজিক কর্মকাণ্ডের ওপর করোনাভাইরাসের সম্ভাব্য প্রভাব’ শীর্ষক জাতিসংঘের একটি প্রতিবেদন প্রকাশকালে এমন আশঙ্কার কথা জানান জাতিসংঘ মহাসচিব। প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস এখন পর্যন্ত বিশ্বের ৪২ হাজার মানুষের প্রাণ নিয়েছে। এতে আক্রান্ত হয়েছে ৮ লাখ ৬০ হাজারেরও বেশি।

গত বছরের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাস শনাক্ত করা হয়। তবে মৃত্যু সংখ্যাতেও চীনকে ছাড়িয়ে গেছে যুক্তরাষ্ট্র। সিএনএন হেলথের হিসাবে, দেশটিতে বর্তমানে মোট মৃতের সংখ্যা ৩ হাজার ৭৭৪ জন। বিপরীতে চীনে মারা গেছেন মোট ৩ হাজার ৩০৫ জন। এছাড়া দেশটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা পৌনে দুই লাখ।

করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) যুক্তরাষ্ট্রে এক লাখ মানুষ মারা যাবে বলে সতর্ক করে দিয়েছেন দেশটির শীর্ষ স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ড. টনি ফৌসি। করোনায় সবচেয়ে বেশি মারা গেছে ইতালিতে, ১২ হাজার ৪২৮ জন। দেশটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা এক লাখ ৫ হাজার ৭৯২।

জাতিসংঘ মহাসচিব বলেন, ‘এই নতুন করোনাভাইরাস সমাজের কেন্দ্রবিন্দুতে আঘাত হানছে, হাজার হাজার মানুষের জীবন ও জীবিকা কেড়ে নিচ্ছে।’
‘জাতিসংঘ গঠনের পর থেকে এ পর্যন্ত সময়ের মধ্যে আমরা যেসব সমস্যার সম্মুখীন হয়েছি, তার মধ্যে সবচয়ে বড় পরীক্ষা কোভিড-১৯’-বলেন গুতেরেস।

এ অবস্থায় সংক্রমণ কমাতে ও এই মহামারির শেষ দেখতে জরুরি ভিত্তিতে ও সমন্বয়ের মাধ্যমে স্বাস্থ্য বিষয়ে সাড়া দিতে আহ্বান জানিয়েছেন জাতিসংঘ প্রধান। একই সঙ্গে, এই সংকটময় মুহূর্তে স্বল্প উন্নত দেশগুলোর সহায়তায় শিল্পোন্নত দেশগুলোকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

এই বিভাগের আরো খবর

করোনা দুর্বল হচ্ছে; ইতালির চিকিৎসক

অনলাইন ডেস্ক: কোভিড-১৯ বর্তমান বিশ্বে...

বিস্তারিত
বিশ্বে প্রাণহানি ৩ লাখ সাড়ে ৭৩ হাজার

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: করোনা ভাইরাসে...

বিস্তারিত
যুক্তরাষ্ট্রে কমেছে মৃত্যুর হার

অনলাইন ডেস্ক: বৈশ্বিক মহামারি করোনা...

বিস্তারিত
করোনা নিয়ন্ত্রণে সফল স্পেন

অনলাইন ডেস্ক: প্রাণঘাতী...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *