চিকিৎসক-স্বাস্থ্যকর্মীদের ৬ জনে একজন আক্রান্তের ঝুঁকিতে

প্রকাশিত: ০৯:১৮, ০২ এপ্রিল ২০২০

আপডেট: ০৬:৫২, ০২ এপ্রিল ২০২০

শাহনাজ ইয়াসমিনঃ করোনা মোকাবেলার যুদ্ধে সামনের সারির যোদ্ধা চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীরা। সর্বোচ্চ সুরক্ষা মেনে করোনা আক্রান্তদের চিকিৎসা সেবা দিলেও তাদের প্রতি ছয়জনের একজন আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি থাকে বলে জানান বিশেষজ্ঞরা। তাই মানসিকভাবে চাঙ্গা রাখতে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের প্রতি সব ধরনের সহযোগিতার আহবান জানান সংশ্লিস্টরা।

করোনা রোগীর চিকিৎসার জন্য সরকার নির্ধারিত হাসপাতালগুলির একটি উত্তরার কুয়েত মৈত্রী হাসপাতাল। এখানে বর্তমানে করোনার পজিটিভ রোগী আছেন ২১ জন। আইসোলেশনে রয়েছেন আরও ৫০ জনের মত। কুয়েত মৈত্রী ছাড়াও কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালেও করোনা রোগী ভর্তি আছেন।

এই রোগীদের যারা চিকিৎসা সেবা দিচ্ছেন তাদের মধ্যে কি ভয় বা আতঙ্ক রয়েছে! এমন প্রশ্নে চিকিৎসা সংশ্লিষ্টরা বলছেন, তারা স্বত:স্ফুর্তভাবেই রোগীদের চিকিৎসা দিতে রাজি হয়েছেন।

কভিড-নাইনটিন রোগীর চিকিৎসকরা সর্বোচ্চ সতর্ক থেকে চিকিৎসা দিলেও ছয়জনে একজন আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি থাকে। ঝুঁকিতে থাকেন তাদের পরিবারও। তাই তাদের সর্বোচ্চ সুরক্ষা ও সামাজিক সহযোগিতা দেওয়া খুব জরুরি।

এই দুঃসময়ে কিছু চিকিৎসক সাধারন ফ্লু আক্রান্ত রোগীদেরও চিকিৎসা দিচ্ছেন না বলে অভিযোগ পাওয়া যাচ্ছে। এটা অমানবিক উল্লেখ করে এই দুই চিকিৎসক বলেন, এটা অমানবিক। চিকিৎসকদের কাছে মানুষ সর্বোচ্চ মানবিক আচরন আশা করে।

এই বিভাগের আরো খবর

সোমবার ঢাকায় আসছে চীনা চিকিৎসক দল

কাজী বাপ্পা: করোনা ভাইরাস মোকাবেলায়...

বিস্তারিত
এখনই শুরু হচ্ছে না এইচএসসিতে ভর্তি কার্যক্রম

রীতা নাহার: করেনা সংকটের কারণে এবছর...

বিস্তারিত
দেশে করোনা সংক্রমণ দীর্ঘমেয়াদী হওয়ার আশংকা

শাহনাজ ইয়াসমিন: প্রতিরোধ ব্যবস্থা বা...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *