২৩ জুলাই পর্যন্ত সমুদ্র সীমানায় মাছ ধরায় নিষেধাজ্ঞা

প্রকাশিত: ০৯:৫৭, ০৩ জুন ২০২০

আপডেট: ০১:৩৯, ০৩ জুন ২০২০

পটুয়াখালী সংবাদদাতা: সাগরে মাছের প্রজনন ও উৎপাদন বাড়াতে ২০ মে থেকে বাংলাদেশের সমুদ্র সীমানায় মাছ ধরায় নিষেধাজ্ঞা চলছে। চলবে ২৩ জুলাই পর্যন্ত। তবে, বাংলাদেশের সাথে অভিন্ন সমুদ্র্রসীমা রয়েছে এমন দেশগুলোর সাথে মিলিয়ে নিষেধাজ্ঞার উদ্যোগ না নিলে কার্যকর ফল মিলবে না বলেই মনে করেন মৎস বিশেষজ্ঞরা। এদিকে, মাছ শিকারে নিষেধাজ্ঞার কারণে ক্ষতিগ্রস্ত জেলেদের জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপ নেয়ার মাধ্যমে সিদ্ধান্ত কার্যকর করার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে বলে জানালেন মৎস কর্মকর্তারা।

বাংলাদেশের সমুদ্র সীমানায় মাছ শিকারে ৬৫ দিনের নিষেধাজ্ঞা শুরু হয়েছে গত ২০ মে থেকে। এক লাখ আঠারো হাজার আটশ তের বর্গ কিলোমিটার এলাকায় এই নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে। মাছের উৎপাদন এবং বংশবিস্তার বাড়াতেই সরকারের এমন সিদ্ধান্ত। যা দ্বিতীয়বারের মতো বাস্তবায়ন করা হচ্ছে।

তবে নিষেধাজ্ঞার লক্ষ্য বাস্তবায়ন করতে হলে আশপাশের দেশগুলোর সাথে আলোচনার ভিত্তিতে একইসময়ে এই অঞ্চলের দেশগুলোর সমুদ্রসীমায় নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা জরুরি বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা। তা না হলে এই সময়ে বাংলাদেশের জেলেরা সমুদ্রে মাছ শিকার না করলেও আশপাশের দেশগুলোর জেলেরা মাছ শিকার করে নিয়ে যাবে।

এদিকে, সরকারের এই উদ্যোগ সফল করতে এরই মধ্যে নানা ধরণের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে বলে জানালেন জেলা মৎস্য কর্মকর্তা। নিষেধাজ্ঞার কারণে জেলেদের ক্ষতি পুষিয়ে নিতে স্বল্প ও দীর্ঘমেয়াদী প্রকল্প গ্রহণের কথাও জানান তিনি।

মৎস্য খাতের সম্প্রসারণে ৬৫ দিনের নিষেধাজ্ঞা যথাযথভাবে কার্যকর করা গেলে তা সমুদ্র অর্থনীতিকে এগিয়ে নিতে বড় ভূমিকা রাখবে বলে মনে করেন সংশ্লিষ্টরা।

 

 

এই বিভাগের আরো খবর

লাজফার্মায় অনুমোদনহীন ওষুধ

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজধানীর কাকরাইলে...

বিস্তারিত
গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩৯, শনাক্ত ৩০৯৯

নিজস্ব প্রতিবেদক: করোনাভাইরাসে...

বিস্তারিত
বাড়ছে না ঈদুল আজহার ছুটি

নিজস্ব প্রতিবেদক: আসন্ন ঈদুল আযহায়...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *