ঢাকা, শনিবার, ২১ অক্টোবর ২০১৭, ৬ কার্তিক ১৪২৪, ৩০ মহাররম ১৪৩৯
শিরোনামঃ
উন্নত বাংলাদেশ গড়তে আওয়ামী লীগকে ক্ষমতায় রাখুন: জয় বেড়িবাঁধ ভেঙে বিভিন্ন জেলার নিম্নাঞ্চল প্লাবিত, ব্যাহত ফেরি চলাচল টানা বৃষ্টিতে ডুবে গেছে ঢাকার বিভিন্ন এলাকা টানা বৃষ্টিতে দেশের বিভিন্ন বন্দরের কার্যক্রমে স্থবিরতা ডি-এইট সম্মেলনে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব পেয়েছে রোহিঙ্গা ইস্যু আওয়ামী লীগে জঙ্গি-সন্ত্রাসি ও চাঁদাবাজের ঠাঁই নেই: ওবায়দুল সু চি’র নীরবতায় রোহিঙ্গাদের ওপর সেনা নিপীড়ন চলছে: ইউনূস ভারী বর্ষণে কলাপাড়ায় বেড়িবাঁধ ভেঙে ১১ গ্রাম প্লাবিত রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে সরকার সম্পূর্ণ ব্যর্থ: আমীর খসরু মালয়েশিয়ায় ৩৯ বাংলাদেশিসহ ১১৩ অভিবাসী আটক একটি গোষ্ঠী রোহিঙ্গাদের সন্ত্রাসী কাজে ব্যবহার করতে চায়: কামরুল প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর সামাজিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করার আহ্বান ইনজুরির কারণে শেষ ওয়ানডেতেও খেলতে পারছেন না তামিম দিনাজপুর ও নেত্রকোনার চাষিরা দিশাহারা স্পেনের অংশ কাতালোনিয়া আছে, থাকবে: রাজা ষষ্ঠ ফিলিপ আলফাডাঙ্গায় মধুমতির ভাঙন এলাকায় ড্রেজিং প্রকল্প উদ্বোধন আফগানিস্তানে দু’টি মসজিদে আত্মঘাতী বোমা হামলা, নিহত ৭২ হাঁস পালন করে ঝিনাইদহের শতাধিক খামারির মুখে হাসি ড্রাগন চাষে লাভবান হচ্ছেন পটুয়াখালীর চাষিরা ভারী বর্ষণে কলাপাড়ায় বেড়িবাঁধ ভেঙে ১১ গ্রাম প্লাবিত

১১৬০ বাংলাদেশি কর্মী বিচারের মুখোমুখি মালয়েশিয়ায়

প্রকাশিত: ০২:৫৯ , ১২ জুলাই ২০১৭ আপডেট: ০২:৫৯ , ১২ জুলাই ২০১৭

নিজস্ব প্রতিবেদক: মালয়েশিয়ায় ইমিগ্রেশেন পুলিশের অভিযানে আটক ১ হাজার ১৬০ বাংলাদেশি কর্মী সে দেশে বিচারের মুখোমুখি হচ্ছেন।  তাদের বিরুদ্ধে অবৈধ বসবাসসহ তিনটি অভিযোগ আনা হয়েছে। মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশ হাইকমিশনার জানিয়েছেন, সে দেশের প্রচলিত আইনে বিচারের আগে এদের দেশে ফেরা সম্ভব নয়। তবে আগামী ডিসেম্বরের মধ্যে রি হেয়ারিং কর্মসূচিতে অন্তর্ভুক্ত হলে শ্রমিকরা বৈধভাবে কাজের সুযোগ পাবেন বলে জানান তিনি।

ভাগ্য বদলাতে বাংলাদেশ, ইন্দোনেশিয়া, মিয়ানমার, ভিয়েতনাম, থাইল্যান্ড, ফিলিপাইনসহ বিশ্বের অনেক দেশের শ্রমিকরাই পাড়ি জমায় মালয়েশিয়ায়। নির্ধারিত সময়ের পরেও নবায়ন ছাড়া যারা দেশটিতে থেকে যান বা অবৈধভাবে কাজ করেন তাদের বিরুদ্ধে সম্প্রতি অভিযানে নামে ইমিগ্রেশন বিভাগ।

মালয়েশিয়ার ডেইলি স্টার পত্রিকার খবর অনুযায়ী, সম্প্রতি দেশটির ইমিগ্রেশন পুলিশের বিশেষ অভিযানে ধরা পড়েছে ৩ হাজার ১৪ অবৈধ বিদেশি নাগরিক। এর মধ্যে বাংলাদেশের রয়েছে ১ হাজার ১৬০ জন।

টেলিফোনে যোগাযোগ করা হলে মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশ হাইকমিশনার শহীদুল ইসলাম জানান,অবৈধ শ্রমিকরা বিচারের মুখোমুখি হবে।

তিনি বলেন, ‘যারা ধরা পড়েছে এবং ধরা পড়ার পরে এদশের যে সমস্ত আইন কানুন আছে, আইন কানুনের মধ্য দিয়েই তো সব কিছু হবে। কারোর বিরুদ্ধে যদি সুনির্দিষ্ট কোনো অপরাধের যদি কোনো বিষয় থাকে, তাহলে এদেশের আইন অনুযায়ী সেগুলো হবে।’

২০১৪ সালে ই-কার্ড ও রি-হেয়ারিং কর্মসূচি চালুর পর অনেক অবৈধ শ্রমিক বৈধ হওয়ার সুযোগ নিয়েছে। এই কর্মসূচিতে যুক্ত শ্রমিকরা বৈধভাবে কাজের সুযোগ ছাড়াও বিভিন্ন সুবিধা পাচ্ছে বলে জানান তিনি।

হাই কমিশনার শহীদুল ইসলাম বলেন, ‘রিহায়ারিং প্রসেসটাকে আরও এক বছর বাড়িয়ে দিয়েছে। আমাদের বাংলাদেশি ভাইয়েরা যারা আছে, তারা যেন এই সুযোগটা গ্রহণ করে। এবং এই সুযোগগুলো যদি নিয়ে নেয়, তাহলে তারা এখানে দুই থেকে পাঁচ বছর পর্যন্ত স্থায়ী ভাবে এখানে কাজ করার সুযোগ পাবে।’

তবে আটক শ্রমিকরা এখন আর রি হেয়ারিং কর্মসূচিতে যুক্ত হতে পারবে না বলে জানান হাই কমিশনার। আরও কত অবৈধ বাংলাদেশি শ্রমিক দেশটিতে আছে সে তথ্য নেই দূতাবাসের কাছে।

এই সম্পর্কিত আরো খবর

দুবাইয়ে জাইটেক্স প্রযুক্তি মেলায় বাংলাদেশের ৪ প্রতিষ্ঠান

  ইউএই প্রতিনিধি: সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাইয়ে জাইটেক্স টেকনোলজি উইকে বাংলাদেশের সফটওয়্যারের প্রতি আগ্রহ ছিল বিদেশি ক্রেতাদের।...

প্রবাসী কর্মীরা বছরে ১৫ বিলিয়ন ডলার রেমিট্যান্স পাঠাচ্ছে: মন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক: দক্ষ জনশক্তি তৈরির ওপর জোর দিয়ে শনিবার প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি বলেছেন, প্রায়...

প্রবাসীদের আয় বিনিয়োগের সম্ভাবনাকে কাজে লাগানো হচ্ছে না

নিজস্ব প্রতিবেদক: দেশে আসা প্রবাসীদের আয় বিনিয়োগ হিসেবে ব্যবহারের যে সম্ভাবনা রয়েছে, তা পুরোপুরি কাজে লাগানো যাচ্ছে না বলে অভিযোগ করেছেন...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is