হার মানতে নারাজ ট্রাম্প, পরিবারে বিভেদ

প্রকাশিত: ০২:০২, ০৯ নভেম্বর ২০২০

আপডেট: ০২:০২, ০৯ নভেম্বর ২০২০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: প্রায় তিন দশক পর টানা দ্বিতীয় মেয়াদে একই প্রেসিডেন্ট পাচ্ছে না যুক্তরাষ্ট্র। তবে ভোটের লড়াইয়ে হারলেও এখনই হার মেনে নিতে নারাজ ডোনাল্ড ট্রাম্প। শান্তিপূর্ণ ক্ষমতা হস্তান্তরে অসম্মতির সিদ্ধান্তে পরিবর্তনের ইঙ্গিতও দেননি। জানুয়ারির ২০ তারিখের আগে যদি ট্রাম্প ক্ষমতা ছাড়তে না চান সেক্ষেত্রে কি হতে পারে যুক্তরাষ্ট্রের পরিস্থিতি? দেশটির রাজনীতি বিশ্লেষকরা বলছেন, পরিস্থিতি ঘোলাটে করে সংকটময় অবস্থার সৃষ্টি করা ট্রাম্পের পক্ষে এখনো সম্ভব।

যুক্তরাষ্ট্রের জটিল নির্বাচনী প্রক্রিয়ায় বেসরকারি আর চূড়ান্ত ফল ঘোষণার মধ্যে কিছু ফাঁকফোকর আছে। দীর্ঘ প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়েই যুক্তরাষ্ট্রে চূড়ান্ত হয় প্রেসিডেন্টের নাম। রীতি অনুযায়ী পপুলার ভোট গণনা শেষে দুই থেকে তিন সপ্তাহের মধ্যে অঙ্গরাজ্যগুলোর গভর্নররা তাতে বৈধতার সনদ দেন। এরপর সেই ভোটের ভিত্তিতে প্রতিটি রাজ্যে ইলেকটর বাছাই হয়। আর এই ইলেকটররাই ফেডারেল কর্তৃপক্ষের কাছে ভোট দেন। ইলেকটোরাল কলেজের সদস্য নির্ধারণ করার দায়িত্ব হচ্ছে অঙ্গরাজ্যগুলোর আইনসভার। এক্ষেত্রে আইনসভাগুলো চাইলে বাইডেনের সমর্থক প্রতিনিধিদের বাদ দিয়ে নিজেদের পছন্দমত প্রতিনিধিদের ফেডারেল কর্তৃপক্ষের কাছে পাঠাতে পারে।

তারা যে ভোট দেবেন, তা আবার গণনা হবে জানুয়ারির তারিখ কংগ্রেসে। বর্তমান কংগ্রেসের সভাপতি ট্রাম্পেরই ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স সেই বৈঠকে সভাপতিত্ব করবেন। সেক্ষেত্রে তিনি চাইলে নির্দিষ্ট কোন রাজ্যের ভোট গ্রহণে আপত্তি জানাতে পারেন। সেক্ষেত্রে আপত্তি গ্রহণযোগ্য হলে আর কোন প্রার্থী এককভাবে ২৭০ ইলেকটোরাল কলেজ না পেলে প্রেসিডেন্ট কে হবেন তা নির্ধারণ করবে কংগ্রেস।

ট্রাম্পের শেষ ভরসাটা এখানেই। কংগ্রেসে প্রতিটা অঙ্গরাজ্য একটি করে ভোট পাবে। কিন্তু বর্তমানে ২৩টি অঙ্গরাজ্যে সংখ্যাগরিষ্ঠতা আছে ডেমোক্র্যোটদের, ২৬টি রিপাবলিকানদের। ফলে ভোটে না জিতেও সাংবিধানিকভাবেই জয়ের সম্ভাবনা রয়েছে ট্রাম্পের। আর এসবের কিছুই না করে ট্রাম্প যদি জোর করে ক্ষমতা আঁকড়ে থাকেন তাহলেও তৈরি হবে সাংবিধানিক সংকট। সবমিলিয়ে নানা জটিল মারপ্যাচের হিসেবে এখন দোলাচলে যুক্তরাষ্ট্রের রাজনীতি।

এদিকে, নির্বাচনী ফলাফল নিয়ে ট্রাম্পের পরিবারে দেখা দিয়েছে বিভক্তি। জামাতা জেরাড কুশনার স্ত্রী মেলানিয়া পরাজয় মেনে নিতে বললেও দুই ছেলে লড়াই চালিয়ে যেতে পরামর্শ দিচ্ছেন ট্রাম্পকে।

এই বিভাগের আরো খবর

বাইডেন ৩০৬, ট্রাম্প ২৩২

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: মার্কিন...

বিস্তারিত
বাইডেনকে সৌদি সরকারের অভিনন্দন

অনলাইন ডেস্ক: নির্বাচনে জয়ের পর...

বিস্তারিত
ক্ষমতা গ্রহণের প্রস্তুতি নিচ্ছেন বাইডেন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: রুদ্ধশ্বাস এক জয়ে...

বিস্তারিত
বাইডেনের জয়ে গলফ খেলেছেন ট্রাম্প

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের...

বিস্তারিত
বাইডেনকে বিশ্ব নেতাদের অভিনন্দন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: বিশ্বের ক্ষমতাধর...

বিস্তারিত
রাজনীতির মাঠে বাইডেনের লড়াই

আফিয়া জ্যোতি : যুক্তরাষ্ট্রের জটিল...

বিস্তারিত
আনন্দ-উচ্ছাসে ভাসছেন বাইডেন সমর্থকরা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : হাড্ডাহাড্ডি...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *