মেহেরপুরে সাড়া ফেলেছে পানি ও বিদ্যুৎ সাশ্রয়ে রিমোট কন্ট্রোল ডিভাইস আপডেট: ০৪:১৩, ০১ আগস্ট ২০১৭

মেহেরপুর প্রতিনিধি: সেচের কাজে পানি ও বিদ্যুৎ অপচয় রোধে মেহেরপুরে সাড়া ফেলেছে রিমোট কন্ট্রোল ইলেকট্রিক ডিভাইস। চমকপ্রদক এ ডিভাইসটির উদ্ভাবক মনিরুল ইসলাম জানালেন একটি মোবাইল ফোন আর দুটি সিমকার্ড দিয়ে তৈরি ডিভাইসটি ব্যবহারে বিদ্যুৎ ও পানির অপচয় রোধের ফলে অর্থ সাশ্রয় হবে।

বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন বিএডিসি’র ক্ষুদ্র সেচ প্রকল্পের আওতায় মেহেরপুর জেলায় বসানো হয়েছে ৪৫টি গভীর নলকূপ। প্রতিটি নলকূপ থেকে সেচ সুবিধা দেয়া হয় প্রায় একহাজার হেক্টর জমিতে। এতে অপচয় হচ্ছে পানি ও বিদ্যুতের।

এ অভিজ্ঞতা মাথায় রেখেই পানি ও বিদ্যুতের অপচয় রোধে ইলেকট্রিক ডিভাইসটির উদ্ভাবনে কাজে হাত দেন মনিরুল।

মোবাইল ফোনে কল দিলেই চালু হবে গভীর নলকুপ। আবার কল দিলে বন্ধ হবে নলকুপটি। ডিভাইসটি তৈরি করতে খরচ হয়েছে মাত্র পাঁচ হাজার টাকা।

নিজের প্রয়োজনে উদ্বুদ্ধ হয়েই যন্ত্রটি তৈরি করেছিলেন বলে জানান মনিরুল। শুধু মনিরুল নয় ডিভাইসটি এখন সবার কাজে আসছে। পানি ও বিদ্যুৎ অপচয় রোধ হওয়ায় আর্থিকভাবে লাভবান হচ্ছেন কৃষকরা। পাশাপাশি যন্ত্রটি দ্বারা জমিতে প্রয়োজন মত যতটুকু পানি দরকার ঠিক ততটুকু পরিমাণেই পানি দিতে পারছেন তাঁরা।

এদিকে বিদ্যুৎ ও পানির অপচয় কম হওয়ায় তথা কৃষি উৎপাদন খরচ কম হবে বলে জেলার পাম্প মালিকদের ডিভাইসটি ব্যবহারে পরামর্শ দেয়ার কথা জানালেন জেলাটির বিএডিসি’র উপ-সহকারী প্রকৌশলী শাহ্ জালাল আবেদীন।

সরকারি সহযোগিতা পেলে সারা দেশে ডিভাইসটি ছড়িয়ে দিতে চান এর উদ্ভাবক মনিরুল ইসলাম। 
 

 

Publisher : .