লোকবল ও চিকিৎসক সংকটে মহেশপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আপডেট: ০৪:১৯, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৭

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি: লোকবল ও চিকিৎসক সংকটে ব্যহত হচ্ছে ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসাসেবা। নয় জন কনসালটেন্ট ও ২১ জন চিকিৎসক থাকার কথা থাকলেও সেখানে মাত্র  তিনজন ডাক্তার দিয়ে চিকিৎসা সেবা দেয়া হচ্ছে। এতে করে ভোগান্তিতে পড়ছেন রোগীরা। তবে কর্তৃপক্ষ লোকবল সংকটের কথা স্বীকার করলেও সেবার ব্যত্যয় মানতে নারাজ। 

মহেশপুর উপজেলার সাড়ে চার লাখ মানুষের চিকিৎসা সেবা দিতে গড়ে তোলা হয় ৫০ শয্যা বিশিষ্ট মহেশপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স। তবে লোকবল ও চিকিৎসকের অভাবে ব্যাহত হচ্ছে চিকিৎসা সেবা। কাঙ্ক্ষিত সেবা না পাওয়ার কারণে ভোগান্তিতে পড়েছে রোগীরা।

হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, নয়জন কনসালটেন্ট ও মেডিক্যাল অফিসারসহ ২১ জন ডাক্তারের পদ রয়েছে হাসপাতালটিতে। কিন্তু মাত্র দুজন মেডিক্যাল অফিসার ও উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তাসহ তিনজন ডাক্তার দিয়ে চলছে স্বাস্থ্য সেবা প্রদান। নানা জটিলতাই পদ শূন্য থাকায় রোগীরা  চিকিৎসা সেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন।

ডাক্তার না থাকায় রোগীরা চরম ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে। তবে উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা জানালেন, লোকবলের সীমাবদ্ধতা থাকলেও রোগীদের সেবা দিয়ে যাচ্ছেন তাঁরা। আর চিকিৎসক সংকটের বিষয়টি ঊর্ধ্বতন মহলকে জানানো হয়েছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. নাসির উদ্দিন জানান, লোকবলের অভাব থাকলেও এলাকাবাসীর স্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিত করতে তাঁরা কাজ করে যাচ্ছেন ।

হাসপাতালটির সীমাবদ্ধতা কাটিয়ে উঠতে সরকার এগিয়ে এলে রোগীরা উপকৃত হবেন বলে জানালেন স্থানীয়রা।