পর্যটকদের জন্য অক্টোবরে খুলছে থাইল্যান্ডের দরজা 

প্রকাশিত: ০৯:২৮, ২৫ আগস্ট ২০২০

আপডেট: ০৯:২৮, ২৫ আগস্ট ২০২০

ফারহীন ইসলামঃ খুব শিগগিরই থাইল্যান্ডের দরজা খুলে যাচ্ছে পর্যটকদের জন্য। আগামী অক্টোবর থেকে বেশকিছু বিধিনিষেধ দিয়ে খুলে দেয়া হবে দেশটির সব পর্যটন স্পট। এমনটাই জানিয়েছেন থাই পর্যটনমন্ত্রী। এখন পর্যন্ত দেশটিতে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন সাড়ে তিন হাজারের বেশি। তবে গত তিন মাসে নতুন করে কেউ করোনায় আক্রান্ত হয়নি। এই পরিস্থিতিতে পর্যটন খাতকে নতুন করে দাঁড় করানোর চেষ্টা শুরু করেছে থাই সরকার। 

Thailand's tourist spots suffer a nosedive

এ লক্ষ্যে সাবধানতা অবলম্বন করেই পর্যটন পরিষেবা চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে দেশটি। এজন্য পর্যটকদের উপর বেশ কিছু শর্ত আরোপ করা হতে যাচ্ছে বলেও জানিয়েছে থাই সরকার। বিধিনিষেধের মধ্যে রয়েছে, থাইল্যান্ড গেলে অবশ্যই ৩০দিন হাতে নিয়ে যেতে হবে। বিদেশ থেকে আসা পর্যটকদের বাধ্যতামূলকভাবে ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে। পরবর্তী ১৪ দিন তারা সেদেশে ভ্রমনের সুযোগ পাবেন। এছাড়া, প্রত্যেক দর্শনাথীকে  অন্তত দুবার করোনা পরীক্ষা করাতে হবে। 

বিশ্বব্যাংকের তথ্যমতে, থাইল্যান্ডের মোট জিডিপির ১৫ শতাংশই আসে পর্যটন সংশ্লিষ্ট খাত থেকে। দেশটির ন্যাশনাল ইকোনমিক এন্ড সোশ্যাল ডেভলপমেন্ট কাউন্সিল জানিয়েছে, এবছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে থাই প্রবৃদ্ধি হ্রাস পেয়েছে ১২.২ শতাংশ। এর আগে ১৯৯৮ সালে দ্বিতীয় প্রান্তিকে থাই প্রবৃদ্ধি সাড়ে ১২ শতাংশ হ্রাস পেয়েছিল। 

সিঙ্গাপুর ভিত্তিক প্রতিষ্ঠান 'ক্যাপিটাল ইকোনমিক্স’এর অর্থনীতিবিদ আলেক্স হোমস বলেন, কোভিড পরিস্থিতিতে বিশ্ব অর্থনৈতিক সংকটের অংশ হিসেবে সিঙ্গাপুর, মালয়েশিয়া ও ফিলিপাইনের মত থাই অর্থনীতিও সঙ্কুচিত হয়ে পড়েছে। তবে পর্যটন থাইল্যান্ডের অর্থনীতিতে প্রধান আয়ের উৎস হওয়ায় অপেক্ষাকৃত বেশি সংকটে পড়েছে দেশটি। এবছর থাইল্যান্ডে ৪ কোটি পর্যটক আসার কথা থাকলেও করোনা পরিস্থিতিতে তা থমকে যায়। পর্যটকের অভাবে থাই সেবাখাত থেকে শুরু করে বিনোদন, খুচরা পণ্য বিক্রি, হোটেল ও রেস্টুরেন্টগুলো একদমই অচল হয়ে পড়েছে।

Where to Stay in Thailand: 13 Incredible Places - ViaHero

থাই সরকার গত মে মাস থেকে অভ্যন্তরীণ পর্যটন চাঙ্গা করতে তহবিলের  যোগান দেয়। থাই ব্যাঙ্ক ক্রাংগশ্রি’র এক প্রতিবেদন বলছে স্থানীয় মানুষের মধ্যে ক্রয়ক্ষমতা ব্যাপক হ্রাস পাওয়ায়  সরকারের এ উদ্যোগ ব্যহত হচ্ছে। থাই সরকারের পূর্বাভাস বলছে কোভিড মহামারীতে ৮৪ লাখ মানুষ বেকার হয়ে পড়তে পারে যা গত দুই দশকের অর্থনৈতিক অর্জনকে অনেকটাই নাজুক করে দিচ্ছে। এমন পরিস্থিতিতে পর্যটন স্পটগুলো সারাবিশ্বের জন্য খুলে দিয়ে অর্থনীতিতে প্রাণ ফেরাতে চাইছে থাইল্যান্ড।
 

এই বিভাগের আরো খবর

ঘুরে আসুন গাবরাখালী

ভ্রমন ডেস্ক: প্রকৃতির টানে শহরের...

বিস্তারিত
দুই মাস পর কক্সবাজারে বিমান চলাচল শুরু 

কক্সবাজার সংবাদদাতা:  প্রায় দুই মাস...

বিস্তারিত
কাল থেকে কক্সবাজার রুটে ফ্লাইট শুরু

নিজস্ব প্রতিবেদক: করানাকালীন সময়ে সব...

বিস্তারিত
ইউরোপ ভ্রমণের শীর্ষে ব্রাগা শহর

অনলাইন ডেস্ক: ২০২১ সালের ইউরোপের সেরা...

বিস্তারিত
করোনা পরবর্তী ভ্রমণে করণীয়

অনলাইন ডেস্ক: করোনাভাইরাসে কাঁপছে...

বিস্তারিত
করোনায় দেশের পর্যটন খাতে ধস

ন্যাশনাল ডেস্ক: করোনা অতিমারির...

বিস্তারিত
সিঙ্গাপুর ভ্রমণে বাংলাদেশিদের নিষেধাজ্ঞা

নিজস্ব প্রতিবেদক: বাংলাদেশ, নেপাল,...

বিস্তারিত
নারায়ণগঞ্জে বর্ণিল লোকজ উৎসব

নারায়ণগঞ্জ সংবাদদাতা: নারায়ণগঞ্জের...

বিস্তারিত
পর্যটকে মুখরিত কক্সবাজার

কক্সবাজার সংবাদদাতা: বিশ্বের...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *