জাতীয়-আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে বৈশাখীর অচলায়তন ভাঙ্গার গল্প

প্রকাশিত: ০৭:৩০, ০৯ মার্চ ২০২১

আপডেট: ০৯:৪৪, ০৯ মার্চ ২০২১

নিজস্ব প্রতিবেদক: চিরকালীন অচলায়তন ভেঙ্গে এই প্রথম দেশে একজন ট্রান্সজেন্ডার নারীকে বৈশাখী টেলিভিশনের পেশাদার সংবাদ পাঠে যুক্ত করার ঘটনা দেশি-বিদেশি গণমাধ্যমে গুরুত্বের সাথে স্থান পেয়েছে। সোমবার (০৮ মার্চ) আন্তর্জাতিক নারী দিবসে এই ট্রান্সজেন্ডার নারী তাসনুভা আনান শিশির প্রথম খবর পড়েন। বৈশাখীর এই ইতিহাস গড়া উদ্যোগ এবং শিশিরকে নিয়ে নানা খবর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও ভাইরাল হয়। অগণিত মানুষ বৈশাখী টেলিভিশনের এমন নজিরবিহীন সাহসী পদক্ষেপকে স্বাগত জানায়। এ সকল প্রতিক্রিয়া বৈশাখী পরিবার নিজেদের জন্য অণুপ্রেরণা মনে করে।

প্রভাবশালী ব্রিটিশ দৈনিক গার্ডিয়ান তাদের মঙ্গলবারের পত্রিকায় একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। বৈশাখী টেলিভিশনে পেশাদার সংবাদ পাঠিকা হিসেবে দেশে এই প্রথম যুক্ত করা ট্রান্সজেন্ডার নারী শিশিরের জীবন কথা সেখানে বর্ণনা করে। এমন উদ্যোগ নেবার পেছনে বৈশাখীর চিন্তাও প্রতিবেদনে বর্ণিত হয়।

ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি বাংলাও এই ঘটনা নিয়ে অনলাইনে এবং ভিডিও প্রতিবেদন করে কয়েকদিন আগে।

ফরাসী সংবাদ সংস্থা এএফপি, কিছু ভারতীয় গণমাধ্যমসহ আরও বিদেশি ও আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠান গুরুত্বের সাথে সংবাদটি প্রকাশ করেছে তাদের দেশি ও আন্তর্জাতিক দর্শক, পাঠক ও শ্রোতাদের জন্য। এএফপি নারী দিবসের মধ্যাহ্নে শিশিরের প্রথম সংবাদ পাঠটি বৈশাখীর সংবাদ কক্ষে নিজেরা ধারণ করে।

দেশের টেলিভিশন চ্যানেলগুলো, সংবাদপত্র ও অনলাইন নিউজ পোর্টালগুলোও গত কয়েকদিন ধরে গুরুত্বের সাথে বৈশাখীর এই উদ্যোগের খবর পচার ও প্রকাশ করে। দেশে প্রচার সংখ্যায় শীর্ষে থাকা ইংরেজি দৈনিক দ্য ডেইলি স্টারের মঙ্গলবারের পত্রিকায় খবরটি প্রথম পাতায় গুরুত্বের সাথে প্রকাশিত হয়।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও গত কয়েকদিন ধরে এই ঘটনা ভাইরাল হচ্ছে। উভয় মাধ্যম্যেই প্রকাশিত খবর ও মতামতে সাধারণভাবে সকলেই সাধুবাদ জানিয়েছেন বৈশাখীর এমন উদ্যোগকে। অনেকে  বলেছেন, দেশে অবহেলিত এই জনগোষ্ঠী যাদেরকে হিজড়া বলে সবাই চেনে, আবার অনেকে তৃতীয় লিঙ্গ বা ট্রান্সজেন্ডার বলেন, তাদের মধ্যে থেকে একজনকে সংবাদ পাঠ ও একজনকে জনপ্রিয় ধারাবাহিক নাটক চাপাবজের মূল চরিত্রে যুক্ত করে বৈশাখী টেলিভিশন সমাজ পরিবর্তনের নতুন দ্বার খুলেছে।

বৈশাখী টেলিভিশন কর্তৃপক্ষ জাতীয় ও আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের ইতিবাচক সাড়াকে তাদের আগামীর পথ চলার অণুপ্রেরণা ও শক্তি হিসেবে দেখছে।

বৈশাখী টেলিভিশন কর্তৃপক্ষ লিঙ্গ পরিচয়ের উর্ধে উঠে যে কোন অবহেলিত জনগোষ্ঠীতে প্রতিভা খুঁজে পেলে তাদেরকে ভবিষ্যতে চ্যানেলের নানা অনুষ্ঠানে বা কাজে যুক্ত করবে বলে জানিয়েছে।

এই বিভাগের আরো খবর

খাগড়াছড়িতে সাংবাদিকদের মানববন্ধন 

খাগড়াছড়ি সংবাদদাতা: খাগড়াছড়িতে...

বিস্তারিত
বিশ্ব মুক্ত গণমাধ্যম দিবস আজ

ডেস্ক প্রতিবেদন: আজ সোমবার (০৩ মে)...

বিস্তারিত
প্রবীণ সাংবাদিক আলী আহমেদ আর নেই

খুলনা সংবাদদাতা: খুলনার স্থানীয়...

বিস্তারিত
প্রবীণ সাংবাদিক সৈয়দ শাহজাহান আর নেই

নিজস্ব প্রতিবেদক: করোনায় আক্রান্ত...

বিস্তারিত
নিখোঁজ সাংবাদিক জামিল উদ্ধার

সাভার সংবাদদাতা: নিখোঁজের একদিন পর...

বিস্তারিত
লেখক ও সাংবাদিক আহমেদ মুসা আর নেই

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিশিষ্ট লেখক ও...

বিস্তারিত
লালমনিরহাটে সাংবাদিকদের মানববন্ধন

লালমনিরহাট সংবাদদাতা: লালমনিরহাটে...

বিস্তারিত
সাংবাদিক বোরহান কবিরের মায়ের ইন্তেকাল

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিশিষ্ট সাংবাদিক ও...

বিস্তারিত
করোনায় গণমাধ্যমকর্মীর মর্মান্তিক মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক: করোনাভাইরাসে করুণ...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *