রোগ প্রতিরোধে জাফরানের ব্যবহার

প্রকাশিত: ০৯:৪৯, ২৩ নভেম্বর ২০২১

আপডেট: ০৯:৪৯, ২৩ নভেম্বর ২০২১

অনলাইন ডেস্ক: জাফরান হল বিশ্বের সবচেয়ে দামী মশলা। মশলা বলে এর কাজ কেবলমাত্র রান্নাঘরেই সীমাবদ্ধ নয়, এর গুণাবলী অনেক। একে জাদু মশলাও বলা হয়। রান্নায় যেমন অন্য স্বাদ যোগ করে, আবার পরীক্ষায় প্রমাণিত চুল, ত্বক থেকে নানান শারীরিক সমস্যা প্রতিরোধ করতে এটি দারুণ উপকারী। চলুন জেনে নেয়া যাক জাফরানের গুণাগুণ।

১. জাফরানে রয়েছে বিস্ময়কর রোগ নিরাময় ক্ষমতা। মাত্র ১ চিমটি জাফরান আপনাকে প্রায় ১৫টি শারীরিক সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে। জাফরানে রয়েছে পটাশিয়াম যা উচ্চ রক্তচাপ ও হৃদপিণ্ডের সমস্যাজনিত রোগ দূর করে।

২. জাফরানের পটাশিয়াম আমাদের দেহে নতুন কোষ গঠন এবং ক্ষতিগ্রস্ত কোষ সারিয়ে তুলতে সহায়তা করে। 

৩. হজমে সমস্যা এবং হজম সংক্রান্ত যেকোনো ধরনের সমস্যা দূর করতে সহায়তা করে জাফরান।

৪. জাফরানের ক্রোসিন নামক উপাদানটি অতিরিক্ত জ্বর কমাতে সহায়তা করে।

৫. নিয়মিত জাফরান সেবনে শ্বাস প্রশ্বাসের নানা ধরনের সমস্যা যেমন অ্যাজমা, পারটুসিস, কাশি এবং বসে যাওয়া কফ দূর করতে সহায়তা করে।

৬. জাফরানের রয়েছে অনিদ্রা সমস্যা দূর করার জাদুকরী ক্ষমতা। ঘুমোতে যাওয়ার আগে গরম দুধে সামান্য জাফরান মিশিয়ে পান করলে অনিদ্রা সমস্যা দূর হবে।

৭. সামান্য একটু জাফরান নিয়ে মাড়িতে ম্যাসাজ করলে মাড়ি, দাঁত এবং জিহŸার নানা সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব।

৮. গবেষণায় দেখা যায় জাফরান দৃষ্টিশক্তি উন্নত করতে এবং চোখের ছানি পড়া সমস্যা প্রতিরোধেও কাজ করে।

৯. জাফরানের অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি উপাদান বাতের ব্যথা, জয়েন্টে ব্যথা, মাংসপেশির ব্যথা এবং দুর্বলতা দূর করতে সাহায্য করে।

১০. অ্যাসিডিটির সমস্যা থেকে রেহাই দিতে পারে সামান্য একটুখানি জাফরান।

১১. জাফরান দেহের কোলেস্টেরল এবং ট্রাইগ্লিসারাইড নিয়ন্ত্রণে রাখতে সহায়তা করে। 

একচিমটি জাফরান আপনাকে প্রায় ১৫টি শারীরিক সমস্যা থেকে মুক্তি

অনলাইন ডেস্ক: জাফরান হল বিশ্বের সবচেয়ে দামী মশলা। মশলা বলে এর কাজ কেবলমাত্র রান্নাঘরেই সীমাবদ্ধ নয়, এর গুণাবলী অনেক। একে জাদু মশলাও বলা হয়। রান্নায় যেমন অন্য স্বাদ যোগ করে, আবার পরীক্ষায় প্রমাণিত চুল, ত্বক থেকে নানান শারীরিক সমস্যা প্রতিরোধ করতে এটি দারুণ উপকারী। চলুন জেনে নেয়া যাক জাফরানের গুণাগুণ।

১. জাফরানে রয়েছে বিস্ময়কর রোগ নিরাময় ক্ষমতা। মাত্র ১ চিমটি জাফরান আপনাকে প্রায় ১৫টি শারীরিক সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে। জাফরানে রয়েছে পটাশিয়াম যা উচ্চ রক্তচাপ ও হৃদপিণ্ডের সমস্যাজনিত রোগ দূর করে।

২. জাফরানের পটাশিয়াম আমাদের দেহে নতুন কোষ গঠন এবং ক্ষতিগ্রস্ত কোষ সারিয়ে তুলতে সহায়তা করে। 

৩. হজমে সমস্যা এবং হজম সংক্রান্ত যেকোনো ধরনের সমস্যা দূর করতে সহায়তা করে জাফরান।

৪. জাফরানের ক্রোসিন নামক উপাদানটি অতিরিক্ত জ্বর কমাতে সহায়তা করে।

৫. নিয়মিত জাফরান সেবনে শ্বাস প্রশ্বাসের নানা ধরনের সমস্যা যেমন অ্যাজমা, পারটুসিস, কাশি এবং বসে যাওয়া কফ দূর করতে সহায়তা করে।

৬. জাফরানের রয়েছে অনিদ্রা সমস্যা দূর করার জাদুকরী ক্ষমতা। ঘুমোতে যাওয়ার আগে গরম দুধে সামান্য জাফরান মিশিয়ে পান করলে অনিদ্রা সমস্যা দূর হবে।

৭. সামান্য একটু জাফরান নিয়ে মাড়িতে ম্যাসাজ করলে মাড়ি, দাঁত এবং জিহŸার নানা সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব।

৮. গবেষণায় দেখা যায় জাফরান দৃষ্টিশক্তি উন্নত করতে এবং চোখের ছানি পড়া সমস্যা প্রতিরোধেও কাজ করে।

৯. জাফরানের অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি উপাদান বাতের ব্যথা, জয়েন্টে ব্যথা, মাংসপেশির ব্যথা এবং দুর্বলতা দূর করতে সাহায্য করে।

১০. অ্যাসিডিটির সমস্যা থেকে রেহাই দিতে পারে সামান্য একটুখানি জাফরান।

১১. জাফরান দেহের কোলেস্টেরল এবং ট্রাইগ্লিসারাইড নিয়ন্ত্রণে রাখতে সহায়তা করে। 

AR/MSI

এই বিভাগের আরো খবর

ধনে পাতার উপকারিতা

অনলাইন ডেস্ক: ধনেপাতা খুবই পরিচিত...

বিস্তারিত
তেঁতুলের অসাধারণ পুষ্টিগুণ

অনলাইন ডেস্ক: তেঁতুল দেখলেই জিভে পানি...

বিস্তারিত
উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করবেন যেভাবে

অনলাইন ডেস্ক: বেশিরভাগই মানুষই উচ্চ...

বিস্তারিত
ওমিক্রন মোকাবেলায় চাই সমন্বিত উদ্যোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক: আফ্রিকার ৭টি দেশ...

বিস্তারিত
দেশে করোনায় আরও ৩ জনের মৃত্যু 

নিজস্ব প্রতিবেদক: দেশে গত ২৪ ঘণ্টায়...

বিস্তারিত
দেশে করোনাভাইরাসে ৭ জনের মৃত্যু 

নিজস্ব প্রতিবেদক : দেশে গত ২৪ ঘণ্টায়...

বিস্তারিত
ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে যা খাবেন

ডেস্ক প্রতিবেদন: ডায়াবেটিসে...

বিস্তারিত
দেশে বেড়েছে ঠান্ডাজনিত রোগ ও ডায়রিয়া

লাবণী গুহ : দেশের বিভিন্ন জেলায় শীত...

বিস্তারিত
দেশে প্রায় ৮৪ লাখ ডায়াবেটিস রোগি

লাবণী গুহ: নিরব মারণঘাতি রোগ...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *