রেমিট্যান্স গ্রহণে বিশ্বে বাংলাদেশ ৮ম

প্রকাশিত: ০২-১২-২০২১ ১৯:৫২

আপডেট: ২৫-০১-২০২২ ০৯:৫৮

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: প্রাকৃতিক বিপর্যয় ও সহিংসতার শিকার হওয়ার কারণে এবং উন্নত জীবনের আশায় বিশ্বে বাড়ছে অভিবাসী মানুষের সংখ্যা। ২০২০ সালে বিশ্বে মোট অভিবাসী ছিল ২৮ কোটিরও বেশি। এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা-আইওএম। এতে আরও জানানো হয়েছে, রেমিট্যান্স গ্রহণে বিশ্বে বাংলাদেশের অবস্থান এখন অষ্টম।

করোনা অতিমারির কারণে বিশ্বব্যাপী চলাচলে নিয়ন্ত্রণ এবং ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা সত্তে¡ও বাড়ছে অভিবাসী মানুষের সংখ্যা। প্রকৃতিক বিপর্যয়, সংঘাত ও সহিংসতার শিকার হওয়ায় তারা যেমন দেশত্যাগ করছেন, তেমনি উন্নত জীবনের আশাতেও অনেকে অভিবাসী হচ্ছেন। আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা-আইওএম এর এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য উঠে এসেছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০২০ সালে বিশ্বে অভিবাসীর সংখ্যা ছিল ২৮ কোটি ১০ লাখ। ১৯৭০ সালে এই সংখ্যা ছিল ৮ কোটি ৪০ লাখ। মোট অভিবাসীর মধ্যে পুরুষ ১৪ কোটি ৬০ লাখ ও নারী সাড়ে ১৩ কোটি। অন্যদিকে অভিবাসী শ্রমিক রয়েছে ১৬ কোটি ৯০ লাখ।

প্রতিবেদনে বাংলাদেশ প্রসঙ্গও ওঠে এসেছে। ২০২০ সালে বিশ্বজুড়ে বাংলাদেশি অভিবাসীর সংখ্যা ছিল ৭০ লাখের বেশি। আর এসব অভিবাসীরা বিপুল রেমিটেন্স পাঠাচ্ছেন দেশে। ২০২০ সালে এই রেমিটেন্সের পরিমাণ ছিলো ২২ কোটি মার্কিন ডলার। আর, রেমিটেন্স গ্রহণে বাংলাদেশের অবস্থান বিশ্বে ৬ষ্ঠ। তবে করোনা অতিমারির কারণে বিশ্বে মোট রেমিটেন্স এর পরিমাণ ২০১৯ সালের তুলনায় কমেছে।

/admiin