নীলফামারীতে জঙ্গি আস্তানা থেকে ৫ জন আটক

প্রকাশিত: ০৪-১২-২০২১ ১১:১৬

আপডেট: ২৫-০১-২০২২ ০৯:৫৮


নীলফামারী সংবাদদাতা: নীলফামারীতে জঙ্গি আস্তানায় অভিযান চালিয়ে উত্তরাঞ্চলে জেএমবির সামরিক শাখার প্রধানসহ পাঁচজনকে আটক করেছে র‌্যাব। এসময় একটি শক্তিশালী বোমা ও বিস্ফোরক দ্রব্য উদ্ধার করা হয়। সকালে সদর সোনারায় ইউনিয়নের মাঝাপাড়ার একটি বাড়ি থেকে তাদের আটকের পর রংপুরে র‌্যাব কার্যালয়ে নেয়া হয়। সেখানে সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাব জানায়, উত্তরাঞ্চলের বিভিন্ন কারাগারে থাকা জেএমবি সদস্যদের ছিনিয়ে নেয়ার পরিকল্পনা ছিলো আটক জঙ্গিদের। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শনিবার (৪ঠা ডিসেম্বর) ভোর থেকে নীলফামারী সদরের সোনারায় ইউনিয়নের মাঝাপাড়ার একটি বাড়ি ঘিরে রাখে র‌্যাব-১৩র সদস্যরা। পরে র‌্যাবের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা ও বোমা নিষ্ক্রিয়করণ দলের সদস্যরা গিয়ে ওই বাড়ি থেকে শক্তিশালী বোমা ও বোমা তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধার করে। এসময় পাঁচ জঙ্গিকে আটক করে তারা। তবে বাড়ীর মালিক শরীফুল ইসলাম র‌্যাবের অভিযানের আগেই পালিয়ে যায়। তিনি জানান, আটকৃতরা সবাই নিষিদ্ধ সংগঠন জেএমবির সদস্য। এদের মধ্যে ওয়াহেদ বোমা তৈরির প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত। বাড়ির পলাতক মালিক শরীফুল ইসলামকে ধরতে অভিযান চলছে। সে দীর্ঘদিন ধরে জঙ্গি কার্যক্রমে জড়িত। তবে নীলফামারীতে এ ধরনের জঙ্গি কার্যক্রমে হতবাক এলাকাবাসী। আটককৃতদের জিজ্ঞাসাবাদের পর বিস্তারিত জানানো হবে বলে জানানো হয়েছে র‌্যাবের পক্ষ থেকে।

/admiin