ঈদে বিনোদন খুঁজতে হলমুখী দর্শকরা

প্রকাশিত: ০৬-০৫-২০২২ ২০:৪১

আপডেট: ০৬-০৫-২০২২ ২০:৪১

বিউটি সমাদ্দার: ঈদে নতুন বাণিজ্যিক সিনেমা মুক্তির চল এখনও আছে, শুধু দেখার জন্য পুরানো পাগলপারা ভিড়টা নেই। ঈদের নতুন সিনেমাকে ঘিরে আনন্দ-উত্তেজনা আর বাণিজ্যের মলিনতা দূর হচ্ছে না সহজে। তবে এখনও একদল দর্শক ঈদ আসলে নতুন সিনেমা দেখতে হলে যায়। করোনা অতিমারির দু’বছরে ঈদে নতুন সিনেমা মুক্তি পায়নি। তবে এবার করোনামুক্ত ঈদে নতুন সিনেমা মুক্তি পেয়েছে। তাই বিনোদন খুঁজতে একদল যাচ্ছে সিনেমায়, আরেকদল মুক্ত পার্কে।

একসময় ঈদ বিনোদনের বিশাল খাত ছিল বাণিজ্যিক বাংলা সিনেমা। ঈদের জন্য নতুন সিনেমা হতো; ঈদের দিন মুক্তি পেতো। সিনেমা দেখার পাগলপারা ভিড় জমতো হলগুলোতে। তখন টিকিট পাওয়া ছিল দায়। এসব বাণিজ্যিক চলচ্চিত্রের স্বর্ণযুগের কথা। এখন চিত্র অনেক মলিন। হল নেই, ঈদের সিনেমা নিয়ে হৈ চৈ নেই।

করোনার দু’বছর ঘরবন্দি ঈদ গেছে, ঈদে সিনেমা মুক্তি পায়নি, হল খোলেনি। এবার করোনামুক্ত ঈদে কয়েকটি নতুন সিনেমা মুক্তি পেয়েছে। স্বর্ণযুগের মতো বিপুল ভিড় না থাকলেও একদল দর্শক এখনো ঈদে বিনোদন পায় হলে গিয়ে সিনেমা দেখায়।   

এবার ঈদের সিনেমা শিল্প সংশ্লিষ্টদের আশাবাদী করেছে। দর্শকরাও প্রত্যাশা করেন মানসম্মত চলচ্চিত্র। কংক্রিটের জঙ্গল, বিভৎস যানজট আর কান ফাঁটানো শব্দ দূষণের ঢাকা মহানগরীতে সবাইকে নিজের মতো করে বিনোদন খুঁজে নিতে হয়। কেউ যায় সিনেমায়, কেউ চিড়িয়াখানায়, একদল যায় বিচিত্র জাদুঘরে, একদল খোলা ময়দানে লেকের ধারে, অনেকে বাচ্চাদের নিয়ে যায় বাণিজ্যিক পার্কে।

যে যেখানেই ঈদের বিনোদন খুঁজতে যাক না কেন, সবাই ক্ষণিকের স্বস্তি ও আনন্দময় সময় চায়। তাই বিনোদনের আয়োজনগুলো আরো সহজলভ্য, সুন্দর ও সমৃদ্ধ করার আকুতি আছে আনন্দ পিপাসুদের কণ্ঠে।

BRS/sharif