লঞ্চের ভাড়া বাড়ানোর সিদ্ধান্ত হয়নি

প্রকাশিত: ০৮-০৮-২০২২ ১৫:৫৫

আপডেট: ০৮-০৮-২০২২ ১৫:৫৫

নিজস্ব প্রতিবেদক: দেশে সব ধরনের জ্বালানি তেলের দাম বাড়ায় লঞ্চের ভাড়া বাড়ানোর আবেদন জানিয়েছে মালিকপক্ষ। তাদের প্রস্তাবের বিষয়ে বৈঠকে বসেছিল নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়। বৈঠকে ভাড়া বাড়ানোর কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি তবে বিষয়টি নিয়ে একটি ওয়ার্কিং কমিটি গঠন করা হয়েছে। আজ সোমবার (৮ই আগস্ট) লঞ্চ মালিকদের সঙ্গে বৈঠক শেষে নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মোস্তফা কামাল এ তথ্য জানান।

তিনি জানান, মালিকপক্ষ দ্বিগুণ ভাড়া বাড়ানোর যে প্রস্তাব দিয়েছে সেটিকে আমরা যৌক্তিক মনে করছি না। এ জন্য একটি ওয়ার্কিং কমিটি গঠন করা হয়েছে। ওয়ার্কিং কমিটি আজকের মধ্যে সরকারের কাছে প্রস্তাব দেবে, সে অনুযায়ী ভাড়া বাড়ানো হবে।

এর আগে ডিজেলের দাম ২৩ শতাংশ বাড়ানোর পর গত বছরের নভেম্বরেই লঞ্চের ভাড়া ৩৫ শতাংশের বেশি বাড়ানো হয়েছিল। নভেম্বরের আগে লঞ্চে ১০০ কিলোমিটার মধ্যে দূরত্বে প্রতি কিলোমিটারে ভাড়া ছিল ১ টাকা ৭০ পয়সা। তখন তা থেকে বাড়িয়ে ২ টাকা ৩০ পয়সা করা হয়েছিল।

১০০ কিলোমিটারের বেশি দূরত্বে প্রতি কিলোমিটারের ভাড়া নভেম্বরের আগে ছিল ১ টাকা ৪০ পয়সা। তা থেকে বাড়িয়ে করা হয়েছিল ২ টাকা। আর লঞ্চের সর্বনিম্ন ভাড়া ১৮ টাকা থেকে বাড়িয়ে ২৫ টাকা করা হয়েছিল নভেম্বরে। 

শুক্রবার রাত ১২টার পর জ্বালানি তেলের নতুন দাম কার্যকর করেছে সরকার। ডিজেল ও কেরোসিনের দাম লিটারে ৩৪ টাকা বাড়িয়ে ১১৪ টাকা, পেট্রোলের দাম ৪৪ টাকা বাড়িয়ে ১৩০ টাকা এবং অকটেনের দাম ৪৬ টাকা বাড়িয়ে ১৩৫ টাকা করা হয়েছে।

এরপর রোববার বাস ও মিনিবাসের সর্বোচ্চ ভাড়া পুনঃনির্ধারণ করে প্রজ্ঞাপন জারি করে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগ। 

 

MHS/shamim