ইপিএল এ উত্তেজনার এক ম্যাচ

প্রকাশিত: ১৫-০৮-২০২২ ১৫:৫০

আপডেট: ১৫-০৮-২০২২ ১৫:৫০

ক্রীড়া ডেস্ক: ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে চরম উত্তেজনাপূর্ণ এক ম্যাচ দেখলো দর্শকরা। খেলোয়াড়দের তর্কবিতর্কের পাশাপাশি হাতাহাতিতে জড়ালেন কোচরা। আর ম্যাচে একদম শেষ মিনিটের গোলে হলো ড্র।

গতকাল রোববার চেলসি ও টটেনহ্যামের মধ্যকার ম্যাচে ঘটেছে এসব ঘটনা। 

স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে ১৯তম মিনিটে কালিদু কোলাবেলির গোলে এগিয়ে যায় চেলসি। প্রথমার্ধে সেই গোলের জবাব আর দিতে পারেনি সফরকারীরা। এতক্ষণ ম্যাচটা ঠিক উত্তেজনাপূর্ণ ছিল না। ৬৮তম মিনিটে পিয়েরি এমিলি গোল দিলেই বাড়ে উত্তেজনা। গোলের উদযাপনে বেপরোয়া টটেনহ্যাম কোচ কন্তেছুটে যান চেলসির ডাগআউটের দিকে। তার দিকে টুখেলও এগিয়ে আসেন। উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে দুই ডাগআউটে। এরপর দুই জনকেই দেখানো হয় হলুদ কার্ড।

চেলসি তাদের পরের গোল পায় ৭৬ মিনিটে। এবার চেলসি কোচ টুখেল ছুটে যান কন্তের সামনে দিয়ে। তাতেই শুরু হয় ঝামেলা। দুই কোচ প্রায় হাতাহাতির পর্যায়ে চলে যান।

নির্ধারিত সময়ে ২-১ গোলে এগিয়ে থাকা চেলসি যখন জয়ের প্রহর গুনছে, তখনই হ্যারি কেইন কেড়ে নিলেন আলো। যোগ করা অতিরিক্ত সময়ের শেষ মিনিটে কর্নার থেকে লক্ষ্যভেদ করেন কেইন।

উত্তেজনা তখনো শেষ হয়ে যায়নি, বরং শেষ প্রস্থ বাকি ছিল। শেষ বাঁশির পর আবারও কথার লড়াই শুরু হয় কন্তে-টুখেলের, যা এক পর্যায়ে রূপ নেয় হাতাহাতিতে। এ নিয়ে দুই দলের খেলোয়াড়দের মধ্যেও ছড়িয়ে পড়ে উত্তেজনা। তবে তা কোনোমতে সামাল দেন বাকি সদস্যরা।

শেষ পর্যন্ত দুই কোচই দেখেন লাল কার্ড। যার ফলে অন্তত এক ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা জুটে গেছে দুই কোচের কপালে।

rocky/habib