নিত্যপণ্যের বাজারে দিশেহারা ক্রেতা

প্রকাশিত: ১৯-০৮-২০২২ ১৭:৩৫

আপডেট: ১৯-০৮-২০২২ ১৮:৩১

নিজস্ব প্রতিবেদক: নানা অজুহাতে নিত্যপণ্যের দাম বাড়ছেই। কখনো বলা হচ্ছে পণ্যের উৎপাদন কম, কখনো আবার ডলারের মূল্যবৃদ্ধির অজুহাত। আর জ্বালানি তেলের দাম বাড়ার পর চাল, চিনি, সয়াবিন তেল, মাছ, মাংস থেকে শুরু করে ডিমের দামও বেড়েছে অস্বাভাবিকভাবে। আর্থিক টানাপোড়েনে দিনযাপন করছেন নিæ ও মধ্যবিত্তরা।

জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির পর নিত্যপণ্যের দাম বাড়ছে। চাল, চিনি, ডাল, তেল, আটা, পেঁয়াজ, কাঁচামরিচ, আদা, রসুন, আলু, শাক-সবজিসহ সকল পণ্যের দাম বেড়েছে। বিচিত্র সব অজুহাতে চড়া বাজার। এতে নিæ আয়ের মানুষতো বটেই, মধ্যবিত্তরাও দিশেহারা।

সপ্তাহের ব্যবধানে আজ শুক্রবার (১৯শে আগস্ট) সব ধরনের চালের দাম কেজি প্রতি বেড়েছে অন্তত ১০ টাকা। সবজির বাজারেও স্বস্তি নেই। কেজিতে ৫০ টাকার নিচে কোন সবজিই কিনতে পারছেনা ক্রেতারা। কাঁচা মরিচের দাম গিয়ে ঠেকেছে প্রতি কেজি ১৮০ টাকায়। ১৫০ টাকার ব্রয়লার মুরগি এখন বিক্রি হচ্ছে ১৯০ টাকায়। ক্রেতাদের অভিযোগ বাজারের এই অস্বাভাবিক মূল্যবৃদ্ধি নিয়ন্ত্রণে সরকারের সংশ্লিষ্ট দপ্তরগুলোর তদারকি খুব একটা নেই।

তবে, বিক্রেতারা বলছেন জ্বালানি তেল ও ডলারের মূল্যবৃদ্ধির কারণে বাধ্য হয়েই নিত্যপণ্যের দাম বাড়াতে হয়েছে । 

 

এদিকে, ডিমের দামে লাগাম টানতে রাজধানীর মিরপুরে অভিযান চালিয়েছে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের ভ্রাম্যমাণ আদালত। এসময় মূল্য তালিকা না থাকা এবং ক্রয়-বিক্রয়ের রশিদ দেখাতে না পারায় কয়েকটি প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা করা হয়।

 

আজ শুক্রবার (১৯শে আগস্ট) ঢাকার খুচরা বাজারে প্রতি ডজন মুরগীর ডিম বিক্রি হচ্ছে ১৩০ টাকায়।

 

Akash/joy