কুকুরের খামার করে সফল টাঙ্গাইলের দিলীপ

প্রকাশিত: ৩০-০৯-২০২২ ০৮:৫৫

আপডেট: ৩০-০৯-২০২২ ০৯:০৮

টাঙ্গাইল সংবাদদাতা: টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে বিদেশি কুকুরের খামার করে তাক লাগিয়ে দিয়েছেন এক ব্যবসায়ী। শখের কুকুর পালনকে বাণিজ্যিক রুপ দিয়েছেন উদ্যোক্তা দিলীপ কুমার সাহা। যার গড়ে তোলা খামারে রয়েছে বিভিন্ন প্রজাতির ৭০ টি কুকুর। দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে অনেকেই ছুটে আসেন এই খামার দেখতে। কেউ কেউ কিনে নিয়ে যান পছন্দের কুকুর। 

টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলার মহেড়া গ্রামের দিলিপ কুমার সাহা বিভিন্ন দেশ ভ্রমণ করার সময় নানা প্রজাতির কুকুর পালতে দেখে নিজেও আগ্রহী হয়ে ওঠেন। আট বছর আগে নিজের বাড়িতে বিদেশি প্রজাতির কুকুর পালন শুরু করেন তিনি। পরবর্তীতে এর পরিধি বাড়িয়ে নিজ বাড়িতে ২০ শতাংশ জমির উপরে গড়ে তোলেন ‘অর্ক ক্যানেল খামার’। 

বর্তমানে এই খামারে ডগ আর্জিন্টিনা, পিট বুল, ইউএস বুলি, কান কোর্সো, ফ্রান্স মার্সিভ, চাউচাউসহ ২৪ প্রজাতির ৭০ টি ছোট বড় কুকুর রয়েছে। যাদের বসবাসের জন্য রয়েছে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ঘর। ওই খামারে কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা হয়েছে অনেকের। 

প্রতিদিন বিভিন্ন স্থান থেকে দর্শনার্থীরা এই খামারে আসেন কুকুর দেখতে। অনেকে আবার নিজেদের পছন্দ অনুযায়ী কুকুর কিনে নেয়। ক্রেতাদের চাহিদা অনুযায়ী কুকুর বিক্রির ব্যবস্থা রয়েছে বলে জানালেন খামারের পরিচালক। 

দেড় কোটি টাকা ব্যায়ে গড়ে তোলা এ খামারে অপরাধের উৎস সন্ধান ও অপরাধীকে চিহ্নিত করার মতো কুকুর পাওয়া যায়। স্বল্প সুদে ঋণ পেলে খামারটি পরিচালনা করা সহজ হবে বলে জানিয়েছেন এর উদ্যোক্তা। প্রতিটি কুকুর প্রজাতি ও আকার ভেদে ২০ হাজার থেকে আড়াই লাখ টাকায় বিক্রি করা হয়।

kanij/sharif