পরিবহন ধর্মঘটে অনেকটাই বিচ্ছিন্ন ফরিদপুর

প্রকাশিত: ১২-১১-২০২২ ০৯:০০

আপডেট: ১২-১১-২০২২ ০৯:০০

ফরিদপুর সংবাদদাতা: মহাসড়কে অবৈধ যান চলাচল বন্ধের দাবিতে ৩৮ ঘন্টার পরিবহন ধর্মঘটে ফরিদপুরের সাথে ঢাকাসহ আশপাশের জেলার যোগযোগ অনেকটাই বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। ফলে চরম ভোগান্তিতে পড়েছে সাধারণ মানুষ। 

শনিবার (১২ই নভেম্বর) সকালে ফরিদপুর বাস স্ট্যান্ড থেকে কোনো বাস ছেড়ে যায়নি এবং কোনো বাস প্রবেশ করেনি। বন্ধ রয়েছে মাদারীপুর, গোপালগঞ্জসহ আশেপাশের পাঁচ জেলায় বাস চলাচলও।

তবে বাস বন্ধ থাকলেও চালু রয়েছে অটোরিক্সা, ইজিবাইক ও মোটরসাইকেল। যাত্রীদের অভিযোগ, এসব পরিবহনে তিনগুণ বেশি ভাড়া আদায় করা হচ্ছে যাত্রীদের কাছ থেকে। বাধ্য হয়ে তাদের অতিরিক্ত ভাড়া দিতে হচ্ছে।

আব্দুল হালিম নামে এক ব্যক্তি বলেন, ঢাকার একটি হাসপাতালে আমার একজন রোগী ভর্তি আছে। এখানে এসে জানতে পারি, বাস চলছে না। তাহলে আমি এখন ঢাকায় যাব কীভাবে ?

মহাসড়কে তিন চাকার যানবাহন চলাচল বন্ধের দাবিতে শুক্রবার সকাল থেকে শনিবার সন্ধ্যা পর্যন্ত ধর্মঘট ডেকেছে জেলা মালিক শ্রমিক ঐক্য পরিষদ। মহাসড়কে নৈরাজ্য বন্ধ ও শৃংখলা ফেরানোর দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণাও দিয়েছেন বাস মালিক নেতারা।

তবে, বাস ধর্মঘটকে পরিকল্পিত দাবি করেছেন স্থানীয় বিএনপি নেতারা। শনিবারের গণসমাবেশ পণ্ড করতেই এই ধর্মঘট বলে অভিযোগ তাদের।

 

rocky/habib