প্রকল্পের মেয়াদ শেষ, ৬ বছরেও হয়নি সেতু

প্রকাশিত: ১৯-১১-২০২২ ০৮:২৯

আপডেট: ১৯-১১-২০২২ ০৯:০৭

গোপালগঞ্জ সংবাদদাতা: গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার রাউতখামার খালে ছয় বছরেও শেষ হয়নি সেতু নির্মাণের কাজ। বছর দু'য়েক আগে প্রকল্পের মেয়াদ শেষ হলেও এখন পর্যন্ত কাজ এগিয়েছে মাত্র ৫০ ভাগ। এতে দুর্ভোগ পোহাচ্ছে আশপাশের গ্রামের প্রায় ষাট হাজার মানুষ। শিক্ষার্থীসহ সবাইকে ঝুঁকি নিয়ে খাল পার হতে হচ্ছে। সেতু নির্মাণে বিলম্বের কারন নির্মাতা ও বাস্তবায়নকারী কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে জানা যায়নি।

স্থানীয় সরকার প্রকৌশল বিভাগের অর্থায়নে ২০১৮ সালের ২৮শে আগস্ট গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার রাউত খামার খালের ওপর সেতু নির্মাণের কাজ শুরু হয়। সাড়ে ৭ কোটি টাকা ব্যয়ে সেতু নির্মাণের দায়িত্ব পায় ‘মাহফুজ খান দবদবিয়া নলছিটি’ নামে একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান। চুক্তি অনুযায়ী ২০২০ সালের ফেব্রুয়ারিতে সেতুর কাজ শেষ হওয়ার কথা থাকলেও এ পর্যন্ত অগ্রগতি মাত্র ৫০ ভাগ। 

বছরের পর বছর অপেক্ষার পরও সেতু নির্মাণের কাজ শেষ না হওয়ায় ভোগান্তি কমছেনা রাউতখামার, মোল্লাকান্দি, খাগাইল, তালতলা, নিচন্দপুর ও উলপুরসহ দশটি গ্রামের প্রায় ষাট হাজার বাসিন্দার। 

স্থানীয়দের অভিযোগ, ঠিকাদারের গাফিলতির কারণেই সেতু নির্মানে দীর্ঘ সময় লাগছে। তবে, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মহসিন উদ্দিন জানান, এলজিইডি কর্তৃপক্ষকে দ্রুত সেতুর নির্মাণকাজ শেষ করার তাগিদ দেয়া হয়েছে। তবে এ বিষয়ে এলজিইডি কর্তৃপক্ষ বা অভিযুক্ত ঠিকাদারের সাথে যোগাযোগ করলেও তারা ক্যামেরার সামনে কথা বলতে রাজি হননি।

lamia/sharif