গাছ কাটায় লাউয়াছড়ায় উজাড় হচ্ছে বন

প্রকাশিত: ২৫-১১-২০২২ ০৮:৪৭

আপডেট: ২৫-১১-২০২২ ১২:১৮

মৌলভীবাজার সংবাদদাতা: লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যানের বনাঞ্চল দিনদিন উজার হচ্ছে। গাছ কেটে ফেলা, বনের ভেতরে বিভিন্ন স্থাপনা তৈরি এবং দর্শনার্থীদের বিচরণ বেড়ে যাওয়াসহ নানা কারণে অস্তিত্ব সংকটে পড়েছে এই বনটি। ফলে বন্যপ্রাণীর পর্যাপ্ত খাদ্য, পানি ও আবাসস্থলের অভাব দেখা দিয়েছে, মারাও যাচ্ছে। 

১২৫০ হেক্টরের লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যান বাংলাদেশের দুর্লভ উদ্ভিদ ও প্রাণীদের জীবন্ত এক সংগ্রহশালা। কিন্তু নানা কারণে এই উদ্যানের গাছগুলো কেটে ফেলা হচ্ছে। বাসস্থান ও খাবারের সংকটে ভুগছে উল­ুক, হনুমান, লজ্জাবতি বানর ও সজারুসহ বিভিন্ন প্রজাতির প্রাণী। বিরল প্রজাতির উল­ুকের ২৬টি পরিবারের মধ্যে এখন অবশিষ্ট আছে ১২টি।

শুকনো মৌসুমে ছড়াগুলো শুকিয়ে যাওয়ায় তৃষ্ণা মেটানোর পানি পাচ্ছে না বণ্যপ্রাণীরা। লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যান থেকেখাদ্য ও আশ্রয়ের খোঁজে লোকালয়ে চলে আসছে অনেক বন্যপ্রাণী। বানর ও মেছো বিড়ালসহ বিভিন্ন প্রাণী মানুষের হাতে মারা যাচ্ছে। 

বিভাগীয় বন কর্মকর্তা জানান, জাতীয় এই উদ্যানে বন্যপ্রাণীর খাবার, আবাসস্থল ও নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে বিভিন্ন ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। এছাড়া লাউয়াছড়ায় প্রায়ই ট্রেন ও ছোট-বড় গাড়ির চাকায় পিষ্ট হয়ে মারা যাচ্ছে অনেক বন্যপ্রাণী। এর মধ্যে বিরল প্রজাতির প্রাণীও রয়েছে। 

Laiza/sharif